চট্টগ্রামেও মেট্রোরেল করার নির্দেশ

চট্টগ্রামেও মেট্রোরেল করার নির্দেশ

সুলতান আহমেদ 

স্বপ্নের পদ্মা সেতু, ঢাকার মেট্রোরেল, চট্টগ্রামের কর্ণফুলি টানেল এমন তিনটি মহাপ্রকল্প চালু হবে চলতি বছরেই। শুধু তাই নয়, এবছর নতুন করে আড়াই লাখ গৃহহীন পরিবার সরকারি অর্থে ঘর পাবে। প্রধানমন্ত্রীর সভাপতিত্বে অনুষ্ঠিত একনেক বৈঠকে নেয়া হয়েছে এমন সিদ্ধান্ত।

পরিকল্পনামন্ত্রী জানিয়েছেন, চট্টগ্রামসহ দেশের গুরুত্বপূর্ণ শহরগুলোতে মেট্রোরেল তৈরির নির্দেশ দিয়েছেন প্রধানমন্ত্রী।

করতেও প্রস্তুতি নিচ্ছেন তারা। পাশাপাশি ঢাকা থেকে ভাঙ্গা পর্যন্ত রেলের কাজও এ বছরেই শেষ হবে বলে জানিয়েছেন রেলমন্ত্রী। সুলতান আহমেদ

করোনা মহামারির চাপ কাটিয়ে পুরোদমে শুরু হয়েছে সবকটি মেগাপ্রকল্প বাস্তবায়নের কাজ। বড় ব্যয়ের প্রকল্পগুলো থেকে এবার সুফল পাওয়ার পালা দেশের জনগনের। পরিকল্পনামন্ত্রী জানালেন ২০২২ সালেই উদ্বোধন হবে পদ্মা সেতু। পাশাপাশি মেট্রোরেলের উত্তরা থেকে আগারগাঁও অংশ, আর দেশের প্রথম কর্ণফুলি টানেলও চালু করে দেয়া হবে এবছরেই।

আরও পড়ুন:

কলোম্বিয়ায় সংঘর্ষে অন্তত ২৩ জন নিহত

কাঠমুন্ডুতে এ সপ্তাহের শুরুতেই অনুষ্ঠিত হলো কমিক এবং এনিমে উৎসব

মঙ্গলবার প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার সভাপতিত্বে শুরু হয় একনেক বৈঠক। যেখানে ১১ হাজার ২ শ কোটি টাকা ব্যয়ের দশটি প্রকল্পের চূড়ান্ত অনুমোদন দেয়া হয়। দেশের ঘরহীন মানুষের জন্য চতুর্থ সংশোধনী আনা হয়েছে আশ্রয়ন প্রকল্পের। ৬ হাজার ৩১৭ কোটি টাকা ব্যয়ের এই প্রকল্পে আড়াই লাখ গৃহহীন মানুষের জন্য ঘর তৈরির পরিকল্পনা করছে সরকার।

মন্ত্রী জানান, ঢাকার পর চট্টগ্রামে মেট্রোরেল করার নির্দেশনা দিয়েছেন প্রধানমন্ত্রী।
এদিকে সচিবালয়ে রেলমন্ত্রী জানিয়েছেন ঢাকা থেকে পদ্মা সেতু হয়ে ভাঙ্গা পর্যন্ত রেল লাইনের কাজও শেষ হবে চলতি বছরেই।

এই সময়ে কক্সবাজার পর্যন্ত রেলের কাজ শেষ করার চিন্তা রয়েছে বলেও জানান তিনি।  

news24bd.tv/এমি-জান্নাত