আগুন আতঙ্কে সুরভী-৯ লঞ্চের যাত্রা বাতিল
Breaking News
আগুন আতঙ্কে সুরভী-৯ লঞ্চের যাত্রা বাতিল

আগুন আতঙ্কে সুরভী-৯ লঞ্চের যাত্রা বাতিল

রাহাত খান, বরিশাল

ঢাকা থেকে বরিশাল যাওয়ার পথে আগুন আতঙ্কে মেঘনা নদীতে যাত্রা বিলম্ব হওয়া এমভি সুরভী-৯ লঞ্চে যাত্রীদের নির্যাতনের অভিযোগ উঠেছে। এমন কি মারধর করা হয় ঘটনার সংবাদ সংগ্রহ করতে যাওয়া সাংবাদিকদের। এ সময় ক্যামেরার লাইট ভেঙ্গে যায়।  

লঞ্চের ম্যানেজারকে সাময়িক বরখাস্ত করা হলেও হামলার ঘটনায় থানায় লিখিত অভিযোগ দেয়ার কথা বলেছেন নির্যাতিতরা।

পাঁচ শতাধিক যাত্রী নিয়ে ঢাকা থেকে বরিশালগামী এমভি সুরভী-৯ লঞ্চটি শনিবার রাত ১১টার দিকে মেঘনা নদী অতিক্রমকালে সাইলেন্সার পাইপে লাগানো তাপ নিরোধক থেকে ধোয়া বের হয়। এতে যাত্রীদের মাঝে আগুন আতংক ছড়িয়ে পড়ে। মুহূর্তেই সোশ্যাল মিডিয়ায় ছড়িয়ে পরে ঘটনা চিত্র।

সম্প্রতি ঘটে যাওয়া ঝালকাঠির সুগন্ধা নদীতে ঘটে যাওয়া লঞ্চ দুর্ঘটনার পুনরাবৃত্তি ঠেকাতে জরুরি সেবা ৯৯৯ নম্বরকে তাৎক্ষণিকভাবে বিষয়টি অবহিত করেন যাত্রীরা। পরে ওই রাতেই কোস্টগার্ডের একটি দল মাঝ নদীতে লঞ্চে গিয়ে ধোঁয়ার উৎস খুঁজতে থাকে এবং লঞ্চটিকে মেঘনার মোহনপুর এলাকায় নোঙ্গর করতে বাধ্য করে।

এর জের ধরে রবিবার (৯ জানুয়ারি) সকালে লঞ্চটি বরিশাল নদী বন্দরে পৌঁছলে লঞ্চের ম্যানেজার মো. মিজানের নেতৃত্বে শ্রমিকরা বেশ কয়েকজন যাত্রীকে মারধর করে। খবর পেয়ে স্থানীয় সাংবাদিকরা নির্যাতনের ছবি তুলতে গেলে তাদের ওপরও হামলা চালায় তারা।


আরও পড়ুন:

রংপুরে বসত ঘর থেকে স্কুলছাত্রীর মরদেহ উদ্ধার, বাবা আটক

গুজবে কান না দেওয়ার পরামর্শ শিক্ষামন্ত্রীর


হামলার ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করেছেন বরিশাল নদী বন্দর কর্তৃপক্ষ।  

এদিকে হামলাকারীদের অবিলম্বে গ্রেপ্তারসহ কঠোর বিচার দাবি করেছেন বরিশাল ইলেক্ট্রনিক মিডিয়া জার্নালিস্ট অ্যাসোসিয়েশন এবং সাংবাদিক ইউনিয়ন বরিশালের নেতারা।

news24bd.tv/ নাজিম

;