শিমু হত্যা: স্বামী রিমান্ডে
শিমু হত্যা: স্বামী রিমান্ডে

শিমু হত্যা: স্বামী রিমান্ডে

অনলাইন ডেস্ক

অভিনেত্রী রাইমা ইসলাম শিমুর মৃত্যুর ঘটনায় স্বামী নোবেলসহ ও গাড়িচালক এস এম ফরহাদকে সোমবার দিবাগত রাতে আটক করেছে র‍্যাব-১০। পরে তাদের তিন দিন করে রিমান্ড মঞ্জুর করেছেন আদালত।

মঙ্গলবার (১৮ জানুয়ারি) ঢাকার চিফ জুডিসিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট রাবেয়া বেগমের আদালত শুনানি শেষে এ রিমান্ড মঞ্জুর করেন।

এদিন তাদের আদালতে হাজির করে পুলিশ।

এরপর কেরানীগঞ্জ মডেল থানায় দায়ের করা হত্যা মামলার সুষ্ঠু তদন্তের জন্য তাদের ১০ দিনের রিমান্ডে নিতে আবেদন করেন উপপরিদর্শক চুন্নু মিয়া।

এর আগে, কেরানীগঞ্জ মডেল থানায় নোবেল ও তার গাড়িচালকের মামলা করেন শিমুর ভাই হারুনুর রশীদ। মামলায় অজ্ঞাতনাম আসামি করা হয়েছে।

চিত্রনায়িকা রাইমা ইসলাম শিমুকে পারিবারিক কলহের জেরে হত্যা করা হয়েছে বলে দাবি করেন ঢাকা পুলিশ সুপার (এসপি) মারুফ হোসেন সরদার।

জিজ্ঞাসাবাদে স্বামী সাখাওয়াত আলী নোবেল মডেল শিমুকে হত্যার বিষয়টি স্বীকার করেছেন বলেও দাবি করেন তিনি।
এর আগে গতকাল সোমবার রাজধানীর কেরানীগঞ্জের হযরতপুরে অভিনেত্রী শিমুর বস্তাবন্দি মরদেহ উদ্ধার করে পুলিশ।

সোমবার রাতে কেরানীগঞ্জ মডেল থানার ওসি (তদন্ত) রমজানুল হক নিউজটোয়েন্টিফোর’কে বলেন, আমরা চিত্রনায়িকা রাইমা ইসলাম শিমুর মরদেহ উদ্ধার করি। পরে মরদেহ ময়নাতদন্তের জন্য মিটফোর্ড হাসপাতালে নিয়ে যাওয়া হয়।

রোববার সকাল ১০টা থেকে নিখোঁজ ছিলেন চিত্রনায়িকা রাইমা ইসলাম শিমু। পরদিন সোমবার কেরানীগঞ্জের হযরতপুরে তার বস্তাবন্দি মরদেহ উদ্ধার করে পুলিশ। মৃত্যুর কারণ সম্পর্কে এখনো কিছু জানা যায়নি।

news24bd.tv তৌহিদ

;