সিপিবির সমাবেশে বোমা হামলার ২১তম বার্ষিকী আজ
সিপিবির সমাবেশে বোমা হামলার ২১তম বার্ষিকী আজ

সংগৃহীত ছবি

সিপিবির সমাবেশে বোমা হামলার ২১তম বার্ষিকী আজ

অনলাইন ডেস্ক

রাজধানীর পল্টন ময়দানে বাংলাদেশের কমিউনিস্ট পার্টির (সিপিবি) সমাবেশে বোমা হামলার ২১তম বার্ষিকী আজ বৃহস্পতিবার। এদিন ২০০১ সালের ২০ জানুয়ারি সিপিবির সমাবেশে বোমা হামলায় নিহত হন পাঁচজন।

গতকাল বুধবার সিপিবির সভাপতি মুজাহিদুল ইসলাম সেলিম ও সাধারণ সম্পাদক মো. শাহ আলম গণমাধ্যমে দেওয়া এক বিবৃতিতে নিহত ব্যক্তিদের স্মৃতির প্রতি গভীর শ্রদ্ধা নিবেদন করেন। সেই সঙ্গে এই হত্যাকাণ্ডের দ্রুত বিচার কার্যকর করার দাবি করেন তাঁরা।

বিবৃতিতে সিপিবির দুই নেতা বলেন, এই হত্যাকাণ্ডের বিচার দীর্ঘসূত্রতায় ফেলে দেওয়া হয়েছে। দায়সারাভাবে অভিযোগপত্র দাখিল করা হয়েছে। এই বোমা হত্যাকাণ্ডের সঙ্গে জড়িত ব্যক্তিদের পাশাপাশি এর নেপথ্যের হোতাদের চিহ্নিত করে বিচারের আওতায় আনতে হবে।  

বোমা হামলায় নিহত ব্যক্তিদের স্মরণে আজ বৃহস্পতিবার সারা দেশে সিপিবির পক্ষ থেকে কর্মসূচি গ্রহণ করা হয়েছে। কেন্দ্রীয় কর্মসূচির অংশ হিসেবে সকাল ১০টা থেকে বেলা ১১টা পর্যন্ত সিপিবির কেন্দ্রীয় কার্যালয় মুক্তি ভবনের সামনে নিহত ব্যক্তিদের স্মরণে নির্মিত অস্থায়ী বেদিতে পুষ্পমাল্য অর্পণ ও সংক্ষিপ্ত সমাবেশ অনুষ্ঠিত হবে। সিপিবিসহ বিভিন্ন রাজনৈতিক দল, ছাত্র, যুব ও বিভিন্ন সামাজিক, সাংস্কৃতিক সংগঠনের নেতারা এবং বিশিষ্ট ব্যক্তিরা এই কর্মসূচিতে অংশ নেবেন বলে জানা গেছে।

আরও পড়ুন:


 

আমরণ অনশনে শাবিপ্রবির ২৪ শিক্ষার্থী


২০২১ সালের এই দিনে হামলায় খুলনা জেলার বটিয়াঘাটা উপজেলার সিপিবি নেতা হিমাংশু মণ্ডল, সিপিবির খুলনা জেলার রূপসা উপজেলার নেতা ও দাদা ম্যাচ ফ্যাক্টরির শ্রমিক নেতা আবদুল মজিদ, ঢাকার ডেমরা থানার লতিফ বাওয়ানি জুট মিলের শ্রমিক নেতা আবুল হাসেম ও মাদারীপুরের মোক্তার হোসেন ঘটনাস্থলেই নিহত হন। খুলনা বিএল কলেজের ছাত্র ইউনিয়ন নেতা কমরেড বিপ্রদাস রায় আহত হয়ে ঢাকা বক্ষব্যাধি হাসপাতালে ওই বছরেই ২ ফেব্রুয়ারি মারা যান। এছাড়া বোমা হামলায় শতাধিক ব্যক্তি আহত হন।

news24bd.tv রিমু