জমে উঠেছে খেজুরের গুড় ও নলেন পাটালির হাট
জমে উঠেছে খেজুরের গুড় ও নলেন পাটালির হাট

জমে উঠেছে খেজুরের গুড় ও নলেন পাটালির হাট

জামান আখতার

দেশজুড়ে চুয়াডাঙ্গার খেজুরের গুড় ও নলেন পাটালির সুখ্যাতি আছে। স্বাদে-গন্ধেও অতুলনীয়। এ গুড় বেচাকেনাকে কেন্দ্র করে প্রতি বছরের মতো এবারও জমে উঠেছে সরোজগঞ্জের গুড়ের হাট। এখানে দূরদূরান্ত থেকে আসছেন ব্যাপারীসহ হাজারো ক্রেতা-বিক্রেতা।

এ হাটে এক মৌসুমে ১০-১৫ কোটি টাকার গুড় বেচাকেনা হয় বলে জানান সংশ্লিষ্টরা।

চুয়াডাঙ্গা-ঢাকা মহাসড়কের সদর উপজেলার কুতুবপুর ইউনিয়নের সরোজগঞ্জ মাধ্যমিক বিদ্যালয় মাঠে শীত মৌসুমে সপ্তাহে দুই দিন সোম ও শুক্রবার এই গুড়ের হাট বসে। সকাল থেকে বিকেল পর্যন্ত চলে বেচাকেনা। এরপর ছোট-বড় ট্রাকসহ বিভিন্ন যানবাহনে সারা দেশে পৌঁছে যায়।

স্থানীয়রা জানান,  ১০০ বছরের বেশি সময় ধরে বসছে এ  গুড়ের হাট। বর্তমানে এ হাটে এক মৌসুমে ১০-১৫ কোটি টাকার গুড় বেচাকেনা হয়।

সংশ্লিষ্টরা  জানান, এবছর ১০/১২ কেজি ওজনের এক ভাড় গুড় বিক্রি হচ্ছে এক থেকে দেড় হাজার টাকায়। এ হাটের গুড়ের মান বেশ ভালো, তুলনামূলকভাবে দামও কম।  এ কারণে এখানকার গুড় বিভিন্ন জেলায় কিনে নিয়ে যান ব্যবসায়ীরা।

কৃষি বিভাগের তথ্য মতে, চুয়াডাঙ্গা জেলাতে আড়াই লাখের বেশি খেজুর গাছ আছে। যা থেকে এ বছর প্রায় আড়াই হাজার মেট্রিকটন খেজুরের গুড় উৎপাদন হবে।

আগামি মার্চ মাস পর্যন্ত এ হাটে গুড় বিক্রি হবে।

news24bd.tv/ তৌহিদ

;