ভোট কেন্দ্রে যাওয়া হল না ইউপি সদস্য প্রার্থীর, পথেই মৃত্যু
ভোট কেন্দ্রে যাওয়া হল না ইউপি সদস্য প্রার্থীর, পথেই মৃত্যু

মারা যাওয়া ইউপি সদস্য প্রার্থী নকুলচন্দ্র দাস

ভোট কেন্দ্রে যাওয়া হল না ইউপি সদস্য প্রার্থীর, পথেই মৃত্যু

অনলাইন ডেস্ক

নওগাঁর নিয়ামতপুর উপজেলার সদর ইউনিয়ন পরিষদের ৯ নম্বর  ওয়ার্ডের সাধারণ সদস্য প্রার্থী ছিলেন নকুলচন্দ্র দাস (৫৭)। ভোটের দিন যাচ্ছিলেন ভোট দিতে। কিন্তু তার আর হল না, পথেই মৃত্যুর কোলে ঢলে পড়েন তিনি।

সোমবার (৩১ জানুয়ারি) বেলা ১টার দিকে স্থানীয় কানাউল সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের কাছে তার মৃত্যু হয়।

ওই কেন্দ্রেই তার ভোট প্রদানের কথা ছিল।

তিনি ওই ইউনিয়নের ৯ নম্বর ওয়ার্ডে বৈদ্যুতিক পাখা মার্কায় প্রতিদ্বন্দ্বিতা করছিলেন। ভোটের মাঠেও প্রচার-প্রচারণায় সরব ছিলেন তিনি। তার আকষ্মিক মৃত্যুতে তার কর্মী-সমর্থক ও স্বজনদের মাঝে শোকের ছায়া নেমে আসে।  

মৃত সদস্য প্রার্থীর ছেলে স্বপন চন্দ্র দাস জানান, বাবা নিয়ামতপুর সদর ইউনিয়নের ৯ নম্বর ওয়ার্ডে বৈদ্যুতিক পাখা নিয়ে নির্বাচনী প্রতিদ্বন্দ্বিতায় ছিলেন। ভোটের দিন দুপুরের দিকে বাড়ির পাশে থেকে একটি ইজিবাইক যোগে  স্থানীয় কানউল সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয় ভোটকেন্দ্রে রওনা দেন। কেন্দ্রে পৌঁছার কিছু আগে হটাৎ করে বুকে ব্যাথা ওঠে। কিছুক্ষণের মধ্যে মৃত্যুর কোলে ঢলে পড়েন তিনি।

নওগাঁ জেলা নির্বাচন অফিসার মাহমুদ হাসান ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করে জানান, অসুস্থতা জনিত কারণে ভোটের দিন কেন্দ্রে যাওয়ার পথে হৃদরোগে আক্রান্ত হয়ে মারা যান নকুলচন্দ্র।

নিয়ামতপুর উপজেলা নির্বাহী অফিসার মো. আবদুল্লাহ আল মামুন বলেন, ‘নিয়ামতপুর ইউনিয়নের ৯ নম্বর ওয়ার্ডের সদস্য প্রার্থী নকুলচন্দ্র দাসের মৃত্যুর খবর শুনে ঘটনাস্থলে গিয়েছিলাম। ভোট কেন্দ্রে যাওয়ার পথে হৃদরোগে আক্রান্ত হয়ে মারা যান তিনি। ’

আরও পড়ুন


চট্টগ্রামে করোনায় মৃত্যু তিন, নতুন শনাক্ত ৭২৯

news24bd.tv এসএম