আদালতের আদেশ শুনে যা বললেন জায়েদ খান
আদালতের আদেশ শুনে যা বললেন জায়েদ খান

ফাইল ছবি

আদালতের আদেশ শুনে যা বললেন জায়েদ খান

অনলাইন ডেস্ক

শিল্পী সমিতির নির্বাচনে জায়েদ খানের প্রার্থীতা বাতিল ও নিপুণকে বিজয়ী ঘোষণা করে আপিল বোর্ড যে সিদ্ধান্ত দিয়েছিল তা স্থগিত করেছেন হাইকোর্ট। একইসঙ্গে প্রার্থিতা বাতিলের সিদ্ধান্ত কেন অবৈধ হবে না, তা জানতে চেয়ে এক সপ্তাহের রুল জারি করেছেন আদালত।

এই রায়ে সন্তুষ্টি প্রকাশ করেছেন চিত্রনায়ক জায়েদ খান। তাৎক্ষণিক প্রতিক্রিয়ায় গণমাধ্যমকে তিনি বলেন, ‘আদালতে ন্যায়বিচার পেয়েছি।

আমি রায় পেয়েছি আপিল বোর্ড অবৈধ বলা হয়েছে। আমিই জয়ী সাধারণ সম্পাদক। ’

তিনি আরও বলেন, ‘মহামান্য হাইকোর্টকে ধন্যবাদ। আদালত বলেছেন, আমার কাজে কোনো বাধা নেই। মাননীয় প্রধানমন্ত্রীকে ধন্যবাদ। বাংলাদেশের বিচার বিভাগ যে স্বাধীন, তা ফের প্রমাণ হলো। আইনের প্রতি আমার শ্রদ্ধা আছে। ’

এছাড়াও সন্তুষ্টি প্রকাশে নিজের ভেরিফায়েড ফেসবুক পেজে তিনবার আলহামদুলিল্লাহ লিখেছেন জায়েদ খান।  

তার এই পোস্টের পর পরই তাকে অভিনন্দন জানানো শুরু করেছেন নেটিজেনরা।

পোস্টের পর ঘণ্টা খানেকের মধ্যেই আড়াই হাজারের বেশি কমেন্ট জমা পড়েছে।  

সোমবার সকালে বাংলাদেশ চলচ্চিত্র শিল্পী সমিতি নির্বাচনের আপিল বোর্ডের প্রার্থিতা বাতিলের সিদ্ধান্ত চ্যালেঞ্জ করে হাইকোর্টে আবেদন করেন চিত্রনায়ক জায়েদ খান। পরে দুপুরে জায়েদের পক্ষে আদেশ আসে।  

উল্লেখ্য, গত ২৮ জানুয়ারি অনুষ্ঠিত হয়েছিল চলচ্চিত্র শিল্পী সমিতির নির্বাচন। এর প্রাথমিক ফলাফলে জয়ী হন চিত্রনায়ক জায়েদ খান। পরে শনিবার (৫ ফেব্রুয়ারি) আরেক প্রার্থী নিপুণ নির্বাচনে বিভিন্ন অনিয়মের অভিযোগ তুলে আবেদন করলে জায়েদ খানের প্রার্থিতা বাতিল করে আপিল বোর্ড। একই সঙ্গে চিত্রনায়িকা নিপুণকে বিনা প্রতিদ্বন্দ্বিতায় জয়ী ঘোষণা করা হয়।

news24bd.tv/ নাজিম

;