স্ত্রীর গোপনাঙ্গে নির্যাতন স্বামীর
স্ত্রীর গোপনাঙ্গে নির্যাতন স্বামীর

সংগৃহীত ছবি

স্ত্রীর গোপনাঙ্গে নির্যাতন স্বামীর

বাগেরহাট প্রতিনিধি

বাগেরহাটের রামপাল উপজেলায় স্বামীর বিরুদ্ধে যৌতুক মামলা করায় স্ত্রী টুম্পা দেবনাথকে (২৭) বেধড়ক মারধরসহ যৌনাঙ্গে পাশবিক নির্যাতন চালিয়েছে স্বামীসহ তার পরিবারের সদস্যরা। এসময়ে টুম্পার মেয়ে অর্পণা পোদ্দারকে (৯) মারধর করারও অভিযোগ উঠেছে।  নির্যাতিতা ওই গৃহবধূ এখন রামপাল হাসপাতালে চিকিৎসা নিচ্ছেন।

সোমবার রাতে উপজেলার কালেগারবেড় গ্রামে স্বামীর বাড়ীতে ওই গৃহবধূ নির্যাতনের শিকার হয়।

হাসপাতালে চিকিৎসাধীন নির্যাতিতা গৃহবধূ টুম্পা দেবনাথ জানান, ১১ বছর আগে উপজেলার কালেখারবেড় গ্রামের গোপী নাথ পোদ্দারের সাথে বিপুল পরিমাণ উপঢৌকন দিয়ে তার বিয়ে হয়। বিয়ের পরপরই যৌতুক লোভী স্বামী তাকে আরও যৌতুকের জন্য চাপ দিতে থাকে। এ পর্যন্ত স্বামীকে ৫ লাখ টাকা যৌতুক দেয়া হলেও আরও ৫ লাখ টাকা যৌতুক দাবী করে সে। যৌতুকের  জন্য স্বামী গোপী তাকে প্রায়শই নির্যাতন করে আসছিল।

এক পর্যায়ে তিনি প্রতিকার চেয়ে বাগেরহাটের আদালতে একটি যৌতুক নিরোধ আইনে মামলা করেন।  

এতে চরম ক্ষিপ্ত হয় স্বামী ও তার পরিবারের সদস্যরা। গত বৃহস্পতিবার স্বামী তার স্ত্রী টুম্পাকে নিতে চায় বলে আদালতকে জানান। এরপর উপজেলার তেলীখালী তার বাবার বাড়ী থেকে স্বামী গোপীর তাকে ও তার সন্তানকে বাড়িতে নিয়ে আসে। সোমবার দুপুরে কালেখারবেড়স্থ তার শশুর বাড়িতে ঘরের দরজা দিয়ে টাকা চুরির অপবাদ দিয়ে শশুর, শাশুড়ী ও স্বামী তাকে ও তার মেয়েকে মারপিট শুরু করে। স্ত্রীর যৌনাঙ্গেও পাশবিক নির্যাতন চালায় স্বামী গোপী। এতে প্রচুর পরিমাণে রক্তক্ষরণ শুরু হলে টুম্পা রামপাল হাসপাতালে ভর্তি হন।

রামপাল থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মো. সামসুদ্দীন জানান, এ বিষয়ে এখনো পর্যন্ত কেউ লিখিত অভিযোগ করেননি। অভিযোগ পাওয়া গেলে আইনগত ব্যবস্থা গ্রহন করা হবে।

news24bd.tv/আলী