‘‌সাকিব-লিটন-মুশফিকরা পারেনি, পারল মেহেদি-আফিফ’
‘‌সাকিব-লিটন-মুশফিকরা পারেনি, পারল মেহেদি-আফিফ’

‘‌সাকিব-লিটন-মুশফিকরা পারেনি, পারল মেহেদি-আফিফ’

অনলাইন ডেস্ক

‌সাকিব, লিটন, মুশফিকুর, মাহমুদউল্লাহর ব্যাটে যা সম্ভব হয়নি, তা বাস্তবে রূপ দিয়েছেন মেহেদি ও আফিফ।  খাদের কিনারে থাকা বাংলাদেশ দলকে জয়ে পৌঁছে দেওয়ায় মেহেদি হাসান মিরাজ ও আফিফ হোসেনের প্রশংসা করে এ কথা বলেন বাংলাদেশের অধিনায়ক তামিম ইকবাল।

সেই সঙ্গে ৪৫ রানে ৬ উইকেট হারানোর পর আবারও ঘুরে দাঁড়ানো সম্ভব- এটা বিশ্বাস করেননি তিনি।

তামিম ইকবাল বলেন, সত্যি বলতে, আমি বিশ্বাস করিনি যে আমরা এমন অবস্থায় জিততে পারব।

তবে মেহেদি ও আফিফের অবিশ্বাস্য ইনিংসের জন্য আমি অত্যন্ত খুশি। তাদের জন্যই এটা সম্ভব হযেছে। আফগানিস্তানের দুর্দান্ত আক্রমণ সত্ত্বেও মেহেদি ও আফিফ ভালো করেছে।

বাংলাদেশের ৪৫ রানে ৬ উইকেট হারানোর পর জয় প্রায় নিশ্চিত ধরে নিয়েছিল আফগানিস্তান।

কিন্তু সেখান থেকেই মিরাজ-আফিফের দুর্দান্তভাবে ঘুরে দাঁড়ায় বাংলাদেশ। শেষ পর্যন্ত বুধবার চট্টগ্রামের জহুর আহমেদ চৌধুরী স্টেডিয়ামে তিন ম্যাচ ওয়ানডে সিরিজের প্রথম ম্যাচে আফগানিস্তানকে ৪ উইকেটে হারিয়েছে টাইগাররা।

আফগানিস্তানের দেওয়া ২১৬ রানের জবাবে ৬ উইকেট হারিয়ে ২১৯ রান করে বাংলাদেশ। ৭ বল হাতে রেখেই জয়ের বন্দরে পৌঁছে যায় টাইগাররা।

ম্যাচটিতে মাত্র ৪৬ রানে ৬টি উইকেটের পতন হলেও মেহেদি হাসান মিরাজ ও আফিফ হোসেনের দুর্দান্ত পার্টনারশিপে বাংলাদেশ শেষ পর্যন্ত জয় নিয়ে মাঠ ছাড়তে সমর্থ হয়েছে। তারা দুইজন মিলে ১৭৪ রানের পার্টনারশিপ গড়ে তোলেন।

মেহেদি হাসান মিরাজ ১২০ বল খেলে ৮১ রান করেন। অন্যদিকে আফিফ হোসেন ১১৫ বল খেলে ৯৩ রান করেন।

ওয়ানডে ক্যারিয়ারে দুইজনেরই যা সর্বোচ্চ রানের ইনিংস।
news24bd.tv/ তৌহিদ

এই রকম আরও টপিক