ইউক্রেনে হামলা, বড় পতন দুই পুঁজিবাজারে
ইউক্রেনে হামলা, বড় পতন দুই পুঁজিবাজারে

ইউক্রেনে হামলা, বড় পতন দুই পুঁজিবাজারে

সুলতান আহমেদ

ইউক্রেনে রাশিয়ার সামরিক হামলার ঘোষণায় বড় পতন হয়েছে দেশের দুই পুঁজিবাজারে। প্রধান পুঁজিবাজার ঢাকা স্টক এক্সচেঞ্জে সূচক পতন হয়েছে একশ নয় পয়েন্ট।

একদিনে বাজার মূলধন খোয়া গেছে প্রায় সাত হাজার কোটি টাকা।

বিশেষজ্ঞরা অবশ্য বলছেন, এর সাথে রয়েছে কেন্দ্রীয় ব্যাংকের সাম্প্রতিক সময়ে জারি করা সার্কুলারের ভূমিকাও।

বর্তমানে পুরো পৃথিবীকে বলা হয় একটি গ্লোবাল ভিলেজ। যার উদাহরণ সপ্তাহের শেষ কার্যদিবসের দুই পুঁজিবাজারের পতন। প্রায় ছয় হাজার কিলোমিটার দূরের দেশ হলেও ইউক্রেন হামলার প্রভাবে বড় দরপতন দেখা গেলো দেশের শেয়ারবাজারে।

সকাল দশটায় লেনদেন শুরুর দিকে ইতিবাচক থাকলেও হামলার খবর ছড়িয়ে পরলে আতঙ্কে শেয়ার বিক্রি করতে থাকেন অনেক বিনিয়োগকারী। এতে ডিএসইর প্রধান সূচক ডিএসইএক্স ৬ হাজার ৯৭০ পয়েন্ট থেকে দিন শেষে দাঁড়ায় ৬ হাজার ৮৪০ পয়েন্টে।

এসময় লেনদেনে অংশ নেওয়া কোম্পানিগুলোর মধ্যে দরপতন হয় ৩২৬ টির; আর বেড়েছে ৩০টি কোম্পানির দর। এতে ডিএসইর বাজার মূলধন পাঁচ লাখ ৫৭ হাজার কোটি টাকা থেকে নেমে আসে পাঁচ লাখ পঞ্চাশ হাজারের ঘরে।

ঢাবি'র সহযোগী অধ্যাপক আল আমিন জানান, কিছু গোষ্ঠী থাকে যারা বিভ্রান্তিকর তথ্য ছড়িয়ে থাকে। যে কারণে অনেক ধরনের ক্ষতি হয়ে যায়। তাই আন্তর্জাতিক ইস্যুকে আমাদের বাজারের সঙ্গে না মেলানোই ভালো।

তবে বাজার সংশ্লিষ্টরা বলছেন, ‍শুধু রাশিয়া-ইউক্রেন যুদ্ধের প্রভাবই নয় সাম্প্রতিক সময়ে পুঁজিবাজারে বিনিয়োগ নিয়ে কেন্দ্রিয় ব্যাংকের জারি করা সার্কুলার নেতিবাচক প্রভাব ফেলছে পুঁজিবাজারে।

শুধু বাংলাদেশ-ই নয় পতনের বৃত্তে বন্দী হয়ে পড়েছে এশিয়া, ইউরোপ, ইউএসএ সহ বিশ্বের বহু দেশের পুঁজিবাজার।

news24bd.tv/ তৌহিদ