রাশিয়ার বিভিন্ন শহরে যুদ্ধবিরোধী বিক্ষোভ, গ্রেপ্তার দেড় হাজারেরও বেশি
রাশিয়ার বিভিন্ন শহরে যুদ্ধবিরোধী বিক্ষোভ, গ্রেপ্তার দেড় হাজারেরও বেশি

সংগৃহীত ছবি

রাশিয়ার বিভিন্ন শহরে যুদ্ধবিরোধী বিক্ষোভ, গ্রেপ্তার দেড় হাজারেরও বেশি

অনলাইন ডেস্ক

রাশিয়ার প্রেসিডেন্ট পুতিনের সামরিক অভিযান ঘোষণার পর ইউক্রেনে একের পর এক হামলা চালাচ্ছে রুশ সেনারা। দ্বিতীয় দিনেও চলছে তুমুল লড়াই। রক্তক্ষয়ী এই যুদ্ধ বন্ধ করতে রাশিয়ার বিভিন্ন শহরে বিক্ষোভ করেছে যুদ্ধবিরোধীরা।

জানা গেছে, বিক্ষোভে এখন পর্যন্ত দেড় হাজারেরও বেশি মানুষকে গ্রেপ্তার করা হয়েছে।

গতকাল বৃহস্পতিবার ইউক্রেনে বিশেষ ‘সামরিক অভিযান’ পরিচালনার ঘোষণা দেওয়ার কয়েক ঘণ্টা পরই ইউক্রেনে হামলার প্রতিবাদ জানিয়ে রাশিয়ার বিভিন্ন শহরে বিক্ষোভ শুরু হয়। এদের মধ্যে মস্কোতে ৯০০ জন ও সেন্ট পিটার্সবার্গে ৪০০ জনকে গ্রেপ্তার করা হয়।

ভাইরাল হওয়া এক ভিডিও ও ছবিতে দেখা যায়, হাজার হাজার মানুষ ‘যুদ্ধকে না বলুন’ লেখা প্ল্যাকার্ড হাতে রাস্তায় মিছিল করেছেন। কিছু প্ল্যাকার্ডে সরকারের সিদ্ধান্তের সমালোচনাও করা হয়েছে।

রাশিয়া ছাড়াও বিশ্বের অনেক শহরে যুদ্ধের বিরুদ্ধে বিক্ষোভ হয়েছে। যুক্তরাষ্ট্রের নিউইয়র্কে শত শত বিক্ষোভকারীর শরীরে ইউক্রেনের পতাকা জড়িয়ে জাতিসংঘের রুশ মিশনের দিকে মিছিল করেছে।

এদিকে, আজ শুক্রবার সকাল হতেই আবারও বিস্ফোরণে প্রকম্পিত হয়ে উঠল ইউক্রেনের রাজধানী কিয়েভে। পরপর তিনটি বিস্ফোরণের ঘটনা ঘটেছে বলে জানা গেছে। স্থানীয় সময় সকাল সাড়ে ৬টার দিকে শহরের দক্ষিণ-পশ্চিম অংশে এই বিস্ফোরণগুলো ঘটে।

ইউক্রেনের সামরিক বাহিনী একটি ভিডিও প্রকাশ করে বলছে যে উত্তর-পূর্বাঞ্চলীয় শহর সুমির রাস্তায় রাশিয়ান হামলাকারীদের সঙ্গে প্রতিরক্ষা যোদ্ধাদের লড়াই চলছে। সূত্র : বিবিসি,  আল জাজিরা

news24bd.tv/ কামরুল

;