রাশিয়া-ইউক্রেন যুদ্ধ : আব্রামোভিচের সাম্রাজ্যের পতন শুরু
রাশিয়া-ইউক্রেন যুদ্ধ : আব্রামোভিচের সাম্রাজ্যের পতন শুরু

রোমান আব্রামোভিচ

রাশিয়া-ইউক্রেন যুদ্ধ : আব্রামোভিচের সাম্রাজ্যের পতন শুরু

অনলাইন ডেস্ক

ইউক্রেনে সামরিক অভিযান চালাচ্ছে অন্যতম বিশ্ব পরাশক্তি রাশিয়া। গত ২৪ ফেব্রুয়ারি স্থানীয় সময় ভোরে এই অভিযান শুরু হয়। আজ সোমবার ইউক্রেনে রাশিয়ার হামলার ১২তম দিন চলছে। ইতিমধ্যেই দেশটির বিভিন্ন শহর দখলে নিয়েছে রুশ বাহিনী।

যুদ্ধে দুই পক্ষের ব্যাপক ক্ষয়ক্ষতি হচ্ছে। অন্তত ১৫ লাখ মানুষ  ইউক্রেন ছেড়েছে বলে জানিয়েছে জাতিসংঘ।

এদিকে রাশিয়ার ওপর ব্যাপক নিষেধাজ্ঞা আরোপ করেছে পশ্চিমা বিশ্ব। ফলে স্বাভাবিকভাবেই তোপের মুখে রয়েছেন রাশিয়ার ধনকুবেররা, বিশেষ করে পুতিনের ঘনিষ্ঠজনরা এ তালিকার শীর্ষে রয়েছেন।

 

পুতিনঘনিষ্ঠদের মধ্যে শীর্ষে রয়েছেন রুশ ধনকুবের ও রাজনীতিবিদ রোমান আব্রামোভিচ। রাশিয়ার চলমান ইউক্রেন আক্রমণের জেরে অবশেষে একরকম বাধ্য হয়েই প্রিয় ক্লাব চেলসিকে বিক্রি করে দেওয়ার সিদ্ধান্ত নিয়েছেন তিনি।

বুধবার লন্ডনভিত্তিক ক্লাব চেলসির ওয়েবসাইটে দেওয়া এক বিবৃতিতে সিদ্ধান্তটি জানান আব্রামোভিচ।

রোমান আব্রামোভিচ তার চেলসি ফুটবল ক্লাব তিন বিলিয়ন পাউন্ডে বিক্রির চেষ্টা করছেন। আর লন্ডনের সম্পত্তি বিক্রির তোড়জোর শুরু করেছেন ২০০ মিলিয়ন পাউন্ডে।

তবে ব্রিটিশ এক এমপির দাবি, আব্রামোভিচের সম্পদ জব্দ করা ঠেকাতেই তাড়াহুড়ো করে বিক্রির চেষ্টা করছেন তিনি। আইনি পদক্ষেপ এড়াতে সংসদীয় বিশেষাধিকারে লেবার পার্টির এমপি ক্রিস ব্রায়ান্ট এ অভিযোগ করেন। সরকার এ ব্যাপারে দ্রুত ব্যবস্থা না নিলে দেরি হয়ে যাবে বলে আশঙ্কা করছেন তিনি।

লন্ডনে চেলসি ফুটবল ক্লাবই আব্রামোভিচের সম্পদের অন্যতম। রোববার লেবার পার্টির নেতা স্যার কেইর স্টারমার প্রধানমন্ত্রী বরিস জনসনের কাছে জানতে চেয়েছেন, কেন রোমান আব্রামোভিচের ওপর নিষেধাজ্ঞা দেওয়া হচ্ছে না।  

যুক্তরাজ্যসহ বিশ্বজুড়ে সাড়ে ১২ বিলিয়ন ডলারের সম্পদ রয়েছে আব্রামোভিচের। ফোর্বস ম্যাগাজিনের তথ্য অনুযায়ী, তার কেনসিংটন ম্যানসনের দাম ২২ মিলিয়ন পাউন্ড। তার প্রমোদতরির দাম ১.২ বিলিয়ন পাউন্ডের বেশি। এছাড়া ব্যক্তিগত বিমান, হেলিকপ্টার এবং অত্যাধুনিক গাড়ি রয়েছে তার।

তার অভিযোগ, রুশ সরকারের সঙ্গে আব্রামোভিচ অত্যন্ত ঘনিষ্ঠভাবে জড়িত। তার বিরুদ্ধে দুর্নীতিরও অভিযোগ রয়েছে।

জবাবে ব্রিটিশ প্রধানমন্ত্রী বরিস জনসন বলেছেন, কোনো ব্যক্তির ব্যাপারে মন্তব্য করা আমার উচিত নয়।

এদিকে নিজের কাছে রুশ প্রভাবশালী ধনকুবেরদের তালিকা রয়েছে জানিয়ে ব্রিটিশ পররাষ্ট্রমন্ত্রী বলেন, তালিকাভুক্ত ধনকুবেরদের টার্গেট করা হচ্ছে।  

দরিদ্র অনাথ থেকে আজ বিশ্বের অন্যতম ধনী আব্রামোভিচ। গর্বাচেভের পেরেস্ত্রোইকার সময়ে প্রথম অর্থ-সম্পদের মুখ দেখতে শুরু করেন তিনি। এরপর আর পেছনে ফিরে তাকাতে হয়নি তাকে।

news24bd.tv রিমু