সংকট সমাধানে যা বললেন ইরানের পররাষ্ট্রমন্ত্রী
সংকট সমাধানে যা বললেন ইরানের পররাষ্ট্রমন্ত্রী

দিমিত্রো কুলেবা-হোসেইন আমির আব্দুল্লাহিয়ান

ইউক্রেন-ইরান পররাষ্ট্রমন্ত্রীর টেলিফোনালাপ

সংকট সমাধানে যা বললেন ইরানের পররাষ্ট্রমন্ত্রী

অনলাইন ডেস্ক

ইউক্রেনে সামরিক অভিযান চালাচ্ছে বিশ্বের দ্বিতীয় বৃহত্তম পরাশক্তি রাশিয়া। গত ২৪ ফেব্রুয়ারি ভোর থেকে এই অভিযান শুরু হয়। আজ মঙ্গলবার ২০তম দিনে গড়িয়েছে এই অভিযান। এরইমধ্যে ইউক্রেনের বেশ কয়েকটি নগরী দখলে নিয়েছে রুশ বাহিনী।

রাশিয়ার ক্রমাগত হামলার ফলে ধ্বংসস্তূপে পরিণত হচ্ছে ইউক্রেন। দেশ ছেড়েছেন প্রায় ২৫ লাখ ইউক্রেন নাগরিক। বাড়ছে মৃত্যুও সংখ্যাও।  

রাজনৈতিক উপায়ে ইউক্রেন সংকট নিরসনের জন্য ইরান সবরকম প্রচেষ্টা চালাবে বলে কিয়েভকে আশ্বাস দিয়েছে তেহরান। গতকাল সোমবার ইউক্রেনের পররাষ্ট্রমন্ত্রী দিমিত্রো কুলেবার সঙ্গে এক টেলিফোনালাপে এই আশ্বাস দিয়েছেন ইরানের পররাষ্ট্রমন্ত্রী হোসেইন আমির-আব্দুল্লাহিয়ান।

ওই টেলিফোনালাপে ইরানের পররাষ্ট্রমন্ত্রী বলেন, যুদ্ধের ধ্বংসযজ্ঞ থেকে বেসামরিক ও কূটনৈতিক স্থাপনাগুলো রক্ষা করতে হবে এবং যেকোনো পরিস্থিতিতে মানবিক ত্রাণ পাঠানোর সুযোগ খোলা রাখতে হবে। এ সময় দুই পররাষ্ট্রমন্ত্রী ইরান ও ইউক্রেনের দ্বিপক্ষীয় সম্পর্ক নিয়েও আলোচনা করেন।

আমির-আব্দুল্লাহিয়ান সুস্পষ্ট করে বলেন, ইরান যেকোনো যুদ্ধের বিরোধী এবং সব রকম মতবিরোধ সংলাপের মাধ্যমে সমাধানে বিশ্বাসী।

রাশিয়া ও ইউক্রেনের পররাষ্ট্রমন্ত্রীদের বৈঠকের প্রতি সমর্থন করে ইরানের পররাষ্ট্রমন্ত্রী বলেন, এ ধরনের সংলাপে গতি এনে চলমান সংকট নিরসন করতে হবে।

তিনি আরও বলেন, ইরান শুধু ইউক্রেন নয় সেইসঙ্গে আফগানিস্তান এবং ইয়েমেন যুদ্ধেরও বিরোধী।

পোল্যান্ডে আশ্রয় নেয়া ইউক্রেনের শরণার্থীদের জন্য ইরান ওই দুই দেশের সীমান্ত অঞ্চলে ত্রাণ পাঠিয়েছে বলে জানান আব্দুল্লাহিয়ান।  বলেন, পোল্যান্ড সীমান্তে ইরানি চিকিৎসক দল পাঠানোর জন্য দেশটির পররাষ্ট্রমন্ত্রীর সঙ্গে তেহরান আলোচনা চালিয়ে যাচ্ছে।

ফোনালাপে যুদ্ধের বিরোধিতা করায় এবং পোল্যান্ড-ইউক্রেন সীমান্তে ত্রাণ পাঠানোয় ইরানকে কৃতজ্ঞতা জানিয়েছেন ইউক্রেনে পররাষ্ট্রমন্ত্রী।

তিনি বলেন, তার দেশের সেনাবাহিনী কিয়েভের কূটনৈতিক স্থাপনাগুলো বিশেষ করে ইরানের কূটনৈতিক মিশনের নিরাপত্তা রক্ষায় সর্বোচ্চ চেষ্টা চালাবে।

news24bd.tv রিমু