মোংলা বন্দর  নৌবাণিজ্যে নেতৃত্ব দিবে :  নৌপ্রতিমন্ত্রী
মোংলা বন্দর  নৌবাণিজ্যে নেতৃত্ব দিবে :  নৌপ্রতিমন্ত্রী

সংগৃহীত ছবি

মোংলা বন্দর  নৌবাণিজ্যে নেতৃত্ব দিবে :  নৌপ্রতিমন্ত্রী

বাগেরহাট প্রতিনিধি          

আগামী দিনে নৌবাণিজ্যে মোংলা বন্দর নেতৃত্ব দিবে বলে মন্তব্য করেছেন নৌপরিবহন প্রতিমন্ত্রী খালিদ মাহমুদ চৌধুরী।

তিনি বলেন, এজন্য সবধরনের ব্যবস্থা গ্রহণ করা হচ্ছে। বঙ্গোপসাগর থেকে মোংলা বন্দর পর্যন্ত ১৩০ কিলোমিটারের নৌ চ্যানেলে সাড়ে ৯মিটার ড্রাফটের জাহাজ আনয়নের ব্যবস্থা করা হচ্ছে।  

বুধবার বিকেলে মোংলা বন্দরে ‘ভেসেল ট্রাফিক ম্যানেজমেন্ট এন্ড ইনফরমেশন সিষ্টেম’ (ভিটিএমআইএস) এর উদ্বোধন করে প্রতিমন্ত্রী এসব কথা বলেন।

খালিদ মাহমুদ চৌধুরী বলেন, মোংলা বন্দরের আপগ্রেডেশনে ৬ হাজার কোটি টাকার প্রকল্প গ্রহণ করা হয়েছে। মোংলা বন্দর পর্যন্ত রেললাইন সংযোজন করা হয়েছে। ৬ লেনের রাস্তার ব্যবস্থা করা হচ্ছে। পদ্মা সেতু এবং রেল লাইন চালু হলে বন্দরের গতি আরো বেড়ে যাবে।

রিজিওনাল কানেক্টিভিটি বেড়ে যাবে। সে  লক্ষ্যে আমাদের ভিশনারী লিডার প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা কাজ করছেন। শেখ হাসিনা শুধু বর্তমান নয়, ভবিষ্যত নিয়ে চিন্তা করে পদক্ষেপ নেন। তার রাজনীতি-ভবিষ্যতে মানুষ কোথায় কিভাবে থাকবে;তা নিয়ে।  

খালিদ মাহমুদ চৌধুরী আরও বলেন, স্বাধীনতার সাড়ে ৩ বছরে বঙ্গবন্ধুকে নিয়ে অনেক ধরনের কটাক্ষ করা হয়েছিল-বঙ্গবন্ধুকে খাটো করার জন্য। বঙ্গবন্ধুকে খাটো করতে পারলে নিজেকে প্রতিষ্ঠা করা যাবে-এ জন্য অনেকেই কটাক্ষ করতেন। ৭৫ এর ১৫ আগস্টের পর দেশকে অন্ধকারে ঠেলে দেয়ার জন্য জিয়া, এরশাদ, খালেদা জিয়া যা যা করা দরকার তা করেছে। গত ১৩ বছরে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার নেতৃত্বে দেশ অন্ধকার থেকে ঘুরে দাঁড়িয়েছে।  

এসময় অন্যান্যের মধ্যে মোংলা বন্দরের চেয়ারম্যান রিয়ার এডমিরাল মোহাম্মদ মুসা, প্রকল্প পরিচালক মো. মামনুর রশিদ উপস্থিত ছিলেন।  

news24bd.tv/আলী