স্ত্রীকে হত্যার পর প্রবাসী স্বামীর আত্মহত্যা
স্ত্রীকে হত্যার পর প্রবাসী স্বামীর আত্মহত্যা

ছবি : নিজস্ব

স্ত্রীকে হত্যার পর প্রবাসী স্বামীর আত্মহত্যা

সাভার প্রতিনিধি

সাভারের আশুলিয়ার স্ত্রীকে হত্যা করে আত্মহত্যা করেছেন সৌদি প্রবাসী স্বামী সাইদুল ইসলাম। পরে নিহতদের লাশ উদ্ধার করে ময়না তদন্তের জন্য রাজধানীর শহীদ সোহরাওয়ার্দী হাসপাতালে পাঠিয়েছে পুলিশ। মঙ্গলবার দুপুরে আশুলিয়ার নিশ্চিন্তপুর এলাকার মোতালেব মন্ডলের আধা পাকা টিনসেড বাড়ি থেকে স্বামীর ফ্যানের সাথে ঝুলন্ত মরদেহ ও  স্ত্রীর বিছানায় শুয়ে থাকা মরদেহ উদ্ধার করা হয়েছে। নিহতরা হলেন শাহানাজ পারভীন (২৪) সে নওগাঁ জেলার মান্দা থানার মনোহরপুর গ্রামের আব্দুল মাজেদ প্রামাণিকের মেয়ে।

সে আশুলিয়ার নিশ্চিন্তপুর এলাকায় ভাড়া বাসায় থেকে স্থানীয় একটি পোশাক কারখানায় কাজ করতো এবং তার স্বামী সাইদুল ইসলাম (৩২) একই এলাকার নওগা মান্ডা থানার চক কশব মন্ডল পাড়ার সামাদ মন্ডলের ছেলে। সে সৌদি প্রবাসী এই চলতি মাসের ৩ তারিখে দেশে ফিরে আসে। নিতহের ফুপাতো বোন শিরিনা আক্তার বলেন,সকালে আমি দরজা ধাক্কা দিলে সাইদুল ভিতর থেকে বলে একটু পরে খুলি। আমি বলেছি বের হও, তাহলে তো জানতে পারবো কি হয়েছে। পরে বের না হলে আমারও অফিসের সময় হয়। তখন আমি অফিসে চলে যাই। পরে জানতে পারি যে আমার বোনকে হত্যা করে সে নিজে আত্মহত্যা করেছে।

পুলিশ জানায়, প্রতিবেশীরা সকাল থেকে নিহতদের সাড়া না পেয়ে তাদের ঘরে প্রবেশ করলে ভিতরে মরদেহ দেখতে পায়। পরে স্থানীয়দের সংবাদের ভিত্তিতে ঘটনাস্থলে পৌছে মরদেহ উদ্ধার করা হয়। কক্ষের ভিতরে বিছানার ওপর স্ত্রী শাহনাজ পারভীনের মরদেহ পরে ছিল, প্রাথমিক ধারণা বিষপানে তার মৃত্যু হয়েছে। আর সিলিং ফ্যানের সাথে স্বামী সাইদুল মন্ডলের মরদেহ ঝুলছিল।

এ বিষয়ে আশুলিয়া থানার পুলিশ উপপরিদর্শক কাজি নাসের বলেন, প্রাথমিক ধারনা পারিবারিক কলহের জেরে এমন ঘটনা ঘটেছে। তবে কেন ও কিভাবে তারা মারা গেলেন তা ময়নাতদন্তের রিপোর্ট পেলে পরবর্তীতে তদন্ত সাপেক্ষে জানা যাবে । এই ঘটনার আশুলিয়ার থানার একটি হত্যা মামলা দায়ের করা হয়েছে ।

ধামরাই থানার ওসি আতিকুল ইসলাম বলেন,বিষয়টি তদন্ত করে দেখা হচ্ছে ওই যুবক কিভাবে মারা গেছে। অপরদিকে সাভারের বিরুলিয়া এলাকা থেকে অজ্ঞাত এক যুবকের একটি বাড়ি থেকে ঝুলন্ত লাশ উদ্ধার করেছে সাভার মডেল থানা পুলিশ।

news24bd.tv/এমি-জান্নাত