হাওরের ইটনা নদীপাড়ের নিচু জমি প্লাবিত 
হাওরের ইটনা নদীপাড়ের নিচু জমি প্লাবিত 

সংগৃহীত ছবি

হাওরের ইটনা নদীপাড়ের নিচু জমি প্লাবিত 

টিটু দাস, কিশোরগঞ্জ :

পাহাড়ী ঢলে কিশোরগঞ্জের হাওরের ইটনা উপজেলার নদীপাড়ের নিচু জমি প্লাবিত হয়েছে। এসব জমির কাঁচা পাকা ধান পানিতে নেমে কাটছেন কৃষক। নদীর পানি বৃদ্ধি পেলে বড় ধরণের ক্ষতির আশঙ্কা করছেন কৃষকরা। সংশ্লিষ্টরা বলছেন, নদীর গভীরতা না থাকায় বারবার ফসলহানির ঘটনা ঘটছে।

 জেলা প্রশাসক বলছেন, নদীর গভীরতা ফিরিয়ে আনতে ব্যবস্থা নেয়া হবে।  

পাহাড়ি ঢলে ডুবে যাচ্ছে ফসল, সেই সঙ্গে ডুবছে কৃষকের স্বপ্ন। স্বপ্নের ফসল বাঁচাতে তাই পানিতে নেমেই কাঁচা পাকা ধান কাটছে কৃষক।

কিশোরগঞ্জের হাওরের ইটনা উপজেলার ধনু ও বাউলা নদীর পানি বেড়ে যাওয়ায় জিওলের বাঁধের পাশে নদীপাড়ের প্রায় দুইশো একর জমি প্লাবিত হয়েছে।

পানি যেন হাওরে ঢুকতে না পারে সেজন্য নিজ উদ্যোগেই বাঁধ রক্ষার চেষ্টা চালাচ্ছে কৃষকরা।  কৃষকগণ বলছেন, নদীর গভীরতা না থাকায় পাহাড়ী ঢলে নদীর পাড় ডুবে বারবার ফসলহানী হচ্ছে। তাই নদী খননের দাবি তাদের।   

নদীর গভীরতা ফিরিয়ে আনতে ব্যবস্থা নেয়ার কথা জানান জেলা প্রশাসক।  এ বছর কিশোরগঞ্জের হাওরে ১ লাখ ৪ হাজার হেক্টর জমিতে বোরো ধানের আবাদ হয়েছে।

news24bd.tv/কামরুল