রুশ সহিংসতা আরও ভয়াবহ হতে পারে : জেলেনস্কি
রুশ সহিংসতা আরও ভয়াবহ হতে পারে : জেলেনস্কি

রুশ সহিংসতা আরও ভয়াবহ হতে পারে : জেলেনস্কি

আসমা তুলি

রুশ সহিংসতা আরও ভয়াবহ হতে পারে বলে আশঙ্কা করছেন ইউক্রেনের প্রেসিডেন্ট ভলোদিমির জেলেনস্কি। সেই সঙ্গে সাধ্যমতো হামলা প্রতিহতের অঙ্গীকার করেন তিনি। তবে আলোচনাই চলমান যুদ্ধ বন্ধের একমাত্র পথ বলে মনে করেন জেলেনস্কি। এরই জেরে চীনের সঙ্গে উচ্চ পর্যায়ে আলোচনার উদ্যোগ নিয়েছে কিয়েভ।

ইউক্রেন পরিস্থিতিসহ বিভিন্ন বিষয়ে তুরস্কের সঙ্গে আলোচনা করেছে যুক্তরাষ্ট্রও।

ইউক্রেনের বুচা শহরের রাস্তায় পড়ে থাকা মরদেহের ছবি এরই মধ্যে বিশ্বজুড়ে নিন্দার ঝড় তুলেছে। রুশ বাহিনী এসব ধ্বংসযজ্ঞ চালিয়েছে বলে অভিযোগ ইউক্রেনের। তবে বেসামরিক কাউকে হত্যার অভিযোগ অস্বীকার করে রাশিয়া বলছে, ইউক্রেনই এসব ভয়াবহতার নাটক সাজিয়েছে।

তবে ইউক্রেনের প্রেসিডেন্ট জেলেনস্কি রাশিয়ার বিরুদ্ধে গণহত্যার অভিযোগ তুলে বিভিন্ন দেশের প্রতি সহায়তার আবেদন অব্যাহত রেখেছেন। দাবি জানান, রাশিয়ার বিরুদ্ধে আরো কঠোর নিষেধাজ্ঞা আরোপের। সেইসঙ্গে ইউক্রেনে রাশিয়ার আগ্রাসন আরো বাড়বে বলেও শঙ্কা তাঁর। তবে চলমান সংঘাত বন্ধে সংলাপকে একমাত্র উপায় বলে মনে করেন জেলেনস্কি।

ইউক্রেনের বিরুদ্ধে রাশিয়ার কর্মকাণ্ড আমরা গণহত্যা বলে বিশ্বাস করি। এ জন্য মস্কোকে অবশ্যই জবাবদিহি করতে হবে।   আমি বিশ্বাস করি আলোচনাই সবচেয়ে ভালো পথ। আলোচনার মাধ্যমে মস্কো-কিয়েভকে একটি লক্ষ্য নির্ধারণ করতে হবে।

এদিকে, চীনের পররাষ্ট্রমন্ত্রী ওয়াং ই –র সঙ্গে ফোনে কথা বলেছেন ইউক্রেনের পররাষ্ট্রমন্ত্রী দিমিত্রো কুলেবা। এ সময় ইউক্রেনে হামলা বন্ধ করতে মস্কোর ওপর বেইজিংয়ের প্রভাব কাজে লাগানোর আহ্বান জানান তিনি। আর সংঘাত অবসানে আলোচনার তাগিদ দেন চীনা পররাষ্ট্রমন্ত্রী। যুদ্ধ বন্ধে তুরস্কের সঙ্গে আলোচনা করেছে যুক্তরাষ্ট্রও।

news24bd.tv/তৌহিদ