নেত্রকোনার কীর্তনখোলা বেড়িবাঁধের বিভিন্ন স্থানে ফাটল 
নেত্রকোনার কীর্তনখোলা বেড়িবাঁধের বিভিন্ন স্থানে ফাটল 

নেত্রকোনার কীর্তনখোলা বেড়িবাঁধের বিভিন্ন স্থানে ফাটল 

সোহান আহমেদ কাকন, নেত্রকোনা:

পাহাড়ি ঢলে নেত্রকোনার বিভিন্ন নদ-নদীর পানি বৃদ্ধির ফলে খালিয়াজুরীর কীর্তনখোলা বেড়িবাঁধের বিভিন্ন স্থানে ফাটল দেখা দিয়েছে।  এ অবস্থায় ঝুঁকি পূর্ণ বাঁধ মেরামতে স্বেচ্ছাশ্রমে কাজ করছেন কৃষকরা। একই সাথে ফসল হারানোর শঙ্কায় কাঁচা ধান কাটছেন কেউ কেউ।  

পহাড়ি ঢলে নেত্রকোনার বিভিন্ন নদ-নদীর পানি বৃদ্ধির ফলে হাওরাঞ্চল খালিয়াজুরীর কির্তনখোলা বাঁধসহ বিভিন্ন বেড়িবাধে ফাটল দেখা দিয়েছে।

এ অবস্থায় মাটি ও বাঁশ দিয়ে বাধ রক্ষায় স্বেচ্ছাশ্রমে কাজ করছেন শতশত কৃষকেরা।

তাদের অভিযোগ, প্রতিবছর হাওরের ফসল রক্ষায় বাধ নিমার্ণে কোটি কোটি টাকা বরাদ্ধ দেয় সরকার। তারপরও পিআইসি গঠনে উপজেলা প্রশাসনের অনিয়ম ও পানি উন্নয়ন বোর্ডের গাফলতির কারণেই বাঁধগুলোর এ অবস্থা হয়।  

বাঁধ মেরামত ও পিআইসি কমিটি গঠনে অনিয়ম হয়েছে কিনা তা খতিয়ে দেখার আশ্বাস দিয়েছে খালিয়াজুরী উপজেলা নির্বাহী অফিসার আরিফুল ইসলাম।

পানি উন্নয়ন বোর্ড বলছে, বৃহস্পতিবার থেকে ধনু নদের পানি কমতে শুরু করেছে ।  আর বাঁধও মেরামত করা হচ্ছে।

নেত্রকোনার ১৩৪টি হাওরে ডুবন্ত বাঁধ রয়েছে ৩শ ৬৫ কিলোমিটার। এ বছর ২৩ কোটি ৬ লাখ টাকা ব্যায়ে ১৮৩ কিলোমিটার বেড়িবাঁধ মেরামত করেছে পানি উন্নয়ন বোর্ড।

news24bd.tv/কামরুল