‘আমার নগ্ন ছবি চাওয়া হতো’
‘আমার নগ্ন ছবি চাওয়া হতো’

ছবি : আনন্দবাজার

‘আমার নগ্ন ছবি চাওয়া হতো’

অনলাইন ডেস্ক

টেলিভিশন অভিনেতা অঙ্কিত সিওয়াচ, যাকে এখন স্টার প্লাস শো 'ইয়ে ঝুকি ঝুকি সি নজর'-এর দৌলতে সবাই চেনেন, তাঁর যন্ত্রণার সংগ্রাম অনেকেরই অজানা। তবে তার টেলিভিশনে কাজ করতে আসার শুরুর দিকের অভিজ্ঞতা ভয়াবহ। এমন কী অভিনয় জগতের খুব পরিচিত শব্দবন্ধ 'কাস্টিং কাউচ'-এর মতো ঘৃণ্য ঘটনারও শিকার হয়েছেন তিনি। সে সব নিয়েই এ বার মুখ খুললেন অভিনেতা।

উত্তরপ্রদেশের মিরাটের ছেলে অঙ্কিত দিল্লিতে কাজ খুঁজতে এসে প্রথমে সাংস্কৃতিক অভিঘাতের মুখোমুখি হন। তার পর তাঁর সারল্যের সুযোগে একের পর এক হেনস্থার ঘটনা ঘটে। সম্প্রতি একটি সাক্ষাৎকারে এমন কিছু অতীত সামনে এনেছেন অঙ্কিত, যা শুনলে শিউরে ওঠে!

তিনি জানান, একটা সময় ছিল যখন তাঁকে বার বার নগ্ন ছবি পাঠাতে বাধ্য করা হতো। কিন্তু একটা শো'তে সুযোগ পাওয়ার জন্য মানুষ আর কত নীচে নামতে পারে! গলা ভারী গিয়ে আসে অঙ্কিতের। বলেন, “আমি এক সময় সবাইকে বিশ্বাস করতাম, ভাবতাম সবাই ভাল মানুষ। কিন্তু সেটাই আপনার দুর্বলতা ভেবে নেওয়া হবে। সবাই আপনার সুযোগ নেবে। ৪ মাসের মধ্যে মডেলিং ছেড়ে দিয়েছিলেন অঙ্কিত। উত্তরপ্রদেশে ফিরে যাওয়ার কথাও ভাবছিলেন। তবে সেই মানসিক অবস্থা থেকে ঘুরেও দাঁড়ান ধীরে ধীরে।

শহরের হালচাল বুঝে রুখে দাঁড়াতে থাকেন। সেই থেকে লড়াই চালিয়ে আজ তিনি সফল, জনপ্রিয় এক মুখ। তবে নির্মম অতীত যে ভোলা যায় না! অঙ্কিত জানান, এ সমাজে যাঁরা ক্ষমতার চূড়োয় বসে আছেন সাধারণ মানুষকে নিংড়ে নেওয়াই তাঁদের কাজ। এই চরিত্রটা কেবল বুঝে নিয়ে এগোতে হবে।

অঙ্কিত সিওয়াচ বর্তমানে সফল অভিনেতা। 'ইয়ে ঝুকি ঝুকি সি নজর'-এ আরমানের মুখ্য ভূমিকায় অভিনয় করেছেন অঙ্কিত।

সূত্র : আনন্দবাজার

news24bd.tv/এমি-জান্নাত   

পাঠকপ্রিয়