করোনার বুস্টার টিকার পার্শ্বপ্রতিক্রিয়া এড়াতে পরামর্শ
করোনার বুস্টার টিকার পার্শ্বপ্রতিক্রিয়া এড়াতে পরামর্শ

সংগৃহীত ছবি

করোনার বুস্টার টিকার পার্শ্বপ্রতিক্রিয়া এড়াতে পরামর্শ

অনলাইন ডেস্ক

দুটি না হলেও অনেকেরই করোনার প্রথম টিকা নেওয়া হয়েছে। বর্তমানে করোনার বুস্টার টিকা কার্যক্রম চলছে। এই টিকা গ্রহণের পরবর্তী সময়ে অনেকেরই নানা শারীরিক সমস্যা বিশেষ করে জ্বর, সর্দি-কাশি বা অন্য কোনও সমস্যা দেখা দিচ্ছে। তবে সবার যে হচ্ছে এমনটা নয়।


বুস্টার ডোজের পার্শ্বপ্রতিক্রিয়া এড়াতে কিছু বিষয় মেনে চলা প্রয়োজন। যেমন :

পর্যাপ্ত পানি পান করুন
পেশিতে ব্যথা, হালকা জ্বর, মাথা ব্যথা, শারীরিক দুর্বলতা— টিকা পরবর্তী সময়ে এই সমস্যাগুলি দেখা দিতে পারে। তবে শরীর আর্দ্র থাকলে অসুস্থতা প্রতিরোধ সহজ হয়। সে জন্য টিকা নেওয়ার আগে এবং পরে প্রচুর পরিমাণ পানি পান করা প্রয়োজন।

সুষম খাবার খান
বুস্টার টিকা পরবর্তী শারীরিক সমস্যা এড়াতে শাকসব্জি, ভিটামিন সি সমৃদ্ধ ফল বেশি করে খান। ভরপুর পুষ্টি সমৃদ্ধ এসব খাবার শরীরের ভেতর থেকে পুষ্টি জোগাবে; সহজে দুর্বল হতে দেবে না।

পর্যাপ্ত ঘুমান
যে কোনও টিকা নেওয়ার পর শরীরে প্রতিরোধ ক্ষমতা কিছুটা কম থাকে। প্রতিরোধ ক্ষমতা বাড়াতে প্রয়োজন পর্যাপ্ত ঘুমের। তাই টিকা নেওয়ার পর এক জন প্রাপ্তবয়স্ক মানুষের অন্তত ৭-৮ ঘণ্টা ঘুমনো জরুরি।

হালকা শরীরচর্চা করুন
টিকা নেওয়ার পর পেশিগুলি নমনীয়তা হারায়। পেশির স্থিতিস্থাপকতা ফিরিয়ে আনতে ও রক্ত চলাচল সচল রাখতে হালকা কয়েকটি শরীরচর্চা করতে পারেন। এতে শরীর ভেতর থেকে চাঙ্গা থাকবে।

করোনার স্বাস্থ্যবিধি মেনে চলুন
বুস্টার টিকা দেওয়া হয়ে গেছে মানেই করোনার স্বাস্থ্যবিধি মানবেন না-এমনটি নয়। টিকা কেন্দ্রে গিয়ে সামাজিক দূরত্ব বজায় রাখা, মাস্ক পরে থাকাটা জরুরী। এ ছা়ড়াও টিকা পরবর্তী সময়েও মাস্ক পরুন। হাতে স্যানিটাইজার দিন। সামাজিক দূরত্ব বজায় রাখুন। কেননা টিকা নেওয়ার পরও কোভিডে আক্রান্ত হতে পারেন যদিও উপসর্গের মাত্রা অনেক কম থাকে। তাই বুস্টার টিকা নেওয়ার পরেও সব রকম কোভিড সুরক্ষাবিধি মেনে চলুন।  

মদ্যপান ও ধুমপান করবেন না
মদ্যপান এবং ধূমপান এড়িয়ে চলুন। কেননা ধূমপান ও মদ্যপান করলে টিকার পার্শ্বপ্রতিক্রিয়াগুলি আরও বেশি সক্রিয় হয়ে ওঠে। শরীরের প্রতিরোধ ক্ষমতা কমে যায়। টিকার কার্যক্ষমতা দুর্বল হয়ে যেতে পারে।

অন্য কোনও টিকা নেবেন না
বুস্টার টিকা নেওয়ার অন্তত ২৮ দিনের মধ্যে অন্য কোনও টিকা নেবেন না। এতে হিতে বীপরিত হতে পারে। টিকার কার্যক্ষমতাও নষ্ট হওয়ার আশঙ্কা থাকে।

বেশি সমস্যা হলে চিকিৎসককে জানান
বুস্টার টিকা নেওয়ার পর জ্বর, সর্দি-কাশি, গলা ব্যথার মতো শারীরিক সমস্যা দেখা দিতে পারে। তবে এই উপসর্গগুলি যদি বেশি দিন স্থায়ী হয়, তা হলে অতি অবশ্যই চিকিৎসকের পরামর্শ নিন।

অন্তঃসত্ত্বারাও বুস্টার নিতে পারেন
সদ্য মা হয়েছেন? বুস্টার টিকা নেওয়ার পর শিশুকে স্তন্যপান করাতে ভয় পাচ্ছেন? বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থার (হু) মতে, বুস্টার টিকা নেওয়ার পর নির্ভয়ে শিশুকে স্তন্যপান করাতে পারেন মায়েরা। এতে বরং স্তন্যদুগ্ধের মাধ্যমে অ্যান্টিবডি শিশুর শরীরে প্রবেশ করছে। অন্তঃসত্ত্বারাও নিতে পারেন বুস্টার টিকা।

(আনন্দবাজার অবলম্বনে)

news24bd.tv/arkabul