নতুন বিপদে ইমরান খান
নতুন বিপদে ইমরান খান

সংগৃহীত ছবি

নতুন বিপদে ইমরান খান

অনলাইন ডেস্ক

পাকিস্তানের সাবেক প্রধানমন্ত্রী ইমরান খানের বিরুদ্ধে তদন্ত শুরু করেছে দেশটির ফেডারেল ইনভেস্টিগেশন এজেন্সি (এফআইএ)। বিরোধীদের অনাস্থা ভোটে ক্ষমতা হারানোর তিন দিনের মাথায় এই তদন্ত শুরু করল এফআইএ। প্রধানমন্ত্রী থাকাকালীন উপহার পাওয়া একটি নেকলেস ১৮ কোটি রুপিতে বিক্রি করে দেওয়ার অভিযোগ রয়েছে তার বিরুদ্ধে।  

পাকিস্তানের আইন অনুযায়ী, সরকারি পদে থাকাকালীন উপহার পাওয়া সব জিনিস সরকারি কোষাগারে জমা করতে হয়।

কিন্তু ইমরান সে নিয়ম মানেননি বলে অভিযোগ ওঠেছে। ইমরান ওই নেকলেসটি তার বিশেষ সহায়ক জুলফিকার বুখারির মাধ্যমে লাহরের এক গয়না বিক্রেতার কাছে বিক্রি করে দেন।

তবে দেশটির কোনো সরকারি বা সাংবিধানিক পদাধিকারী উপহার নিজের কাছে রাখতে চাইলে সেটির বাজারমূল্যের অর্ধেক সরকারি কোষাগারে জমা করতে হয়। এ ক্ষেত্রে ইমরান নেকলেসের মূল্য অনেক কম দেখিয়ে মাত্র কয়েক হাজার টাকা সরকারি কোষাগারে জমা দিয়েছেন বলেও অভিযোগ রয়েছে।

যদিও এ বিষয়ে ইমরান খান বা তার দল তেহরিক-ই-ইনসাফের পক্ষ থেকে এখনও কিছু জানানো হয়নি, কোনও মন্তব্যও আসেনি।

পাকিস্তানের জাতীয় নির্বাচন অনুষ্ঠিত হওয়ার কথা ছিল মূলত ২০২৩ সালের আগস্টে। কিন্তু তার আগেই অনাস্থা ভোটে হেরে ক্ষমতা ছাড়তে হয়েছে প্রধানমন্ত্রী ইমরান খানকে।

কূটনৈতিক বিশ্লেষকরা মনে করছেন, সদ্য সাবেক প্রধানমন্ত্রী ইমরান খানের বিরুদ্ধে বিভিন্ন মামলার শুনানি হতে পারে। রাজনীতির লড়াইয়ে গ্রেফতারও হতে পারেন পাকিস্তানের এই সাবেক ক্যাপ্টেন।

news24bd.tv/আলী

;