কিয়েভে ক্ষেপণাস্ত্র হামলা, সাংবাদিক নিহত
কিয়েভে ক্ষেপণাস্ত্র হামলা, সাংবাদিক নিহত

সংগৃহীত ছবি

কিয়েভে ক্ষেপণাস্ত্র হামলা, সাংবাদিক নিহত

অনলাইন ডেস্ক

গত ২৪ ফেব্রুয়ারি ভোর থেকে ইউক্রেনে বিশেষ সামরিক অভিযান চালাচ্ছে রাশিয়া। অভিযানে রাশিয়ার ছোঁড়া বোমা আর রকেটে কেঁপে উঠছে ইউক্রেনের বিভিন্ন শহর। এর মধ্যে ইউক্রেনের বেশ কয়েকটি নগরী দখলে নিয়েছে রুশ বাহিনী। ইউক্রেনে রুশ সেনাদের হামলায় প্রতিদিনই বাড়ছে নিহতের সংখ্যা।

ইউক্রেন-রাশিয়ার চলমান যুদ্ধে বৃহস্পতিবার ইউক্রেনের রাজধানী কিয়েভে রুশ ক্ষেপণাস্ত্র হামলায় এক সাংবাদিক নিহত হয়েছেন বলে জানা গেছে। খবর বিবিসির

আজ শুক্রবার বিবিসির এক প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, ভেরা গাইরিচ নামের ওই সাংবাদিক রেডিও লিবার্টির কর্মী ছিলেন।

রেডিওটি এক বিবৃতিতে জানায়, ভেরা গাইরিচ যে ভবনে বসবাস করতেন সেখানে ক্ষেপণাস্ত্র আঘাত হানে। এ সময় তিনি বাড়িতে ছিলেন।

সামাজিক যোগাযোগমাধ্যম ফেসবুকে ভেরা গাইরিচের সহকর্মী লেখেন, ‘চমৎকার একজন লোক চলে গেলেন। ’

এর আগে, কিয়েভের মেয়র ভিটালি ক্লিটসকো জানান, বৃহস্পতিবারে হওয়া ক্ষেপণাস্ত্র হামলায় ‍ক্ষতিগ্রস্ত ভবনের ধ্বংসাবশেষ থেকে একটি মরদেহ উদ্ধার করা হয়েছে। তবে এর চেয়ে বেশি তথ্য তিনি দেননি।

ইউক্রেনের বিভিন্ন লক্ষ্যবস্তুতে হামলা চালানো হয়েছে বলে মস্কো নিশ্চিত করেছে।

ইউক্রেনের প্রেসিডেন্ট ভলোদিমির জেলেনস্কির সঙ্গে জাতিসংঘের মহাসচিব গুতেরেস যৌথ সংবাদ সম্মেলনে অংশ নেওয়ার ঘণ্টাখানেক পর এ হামলার ঘটনা ঘটে।

এদিকে, গুতেরেস মুখপাত্র স্টিফেন ডুজারিক বলেন, জাতিসংঘের মহাসচিব ও তার দলের সবাই নিরাপদে আছেন।  

তিনি বলেন, হামলার সময় জাতিসংঘের প্রতিনিধি দল হোটেলে ছিল না। তারা ইউক্রেনের প্রধানমন্ত্রীর সঙ্গে তার বাসভবনে বৈঠক করছিলেন।

হামলার ঘটনায় বিস্ময় প্রকাশ করে জাতিসংঘের মহাসচিব গুতেরেস জানান, আমি আজ কিয়েভে। কিয়েভে দুটি রকেট বিস্ফোরিত হয়েছে। এটি জেনে অবাক হয়েছি যে, দুটি রকেটই নাকি আঘাত হেনেছে আমি যে শহরে থাকি সেখানে।

news24bd.tv/রিমু