গরমে স্বস্তি পেতে
গরমে স্বস্তি পেতে

সংগৃহীত ছবি

গরমে স্বস্তি পেতে

অনলাইন ডেস্ক

প্রখর রোদে গরমে নাজেহাল হয়ে পড়েছে মানুষ। এক পশলা বৃষ্টি না হতেই আবার তাপদাহ শুরু! আবহাওয়ার এই পালাবদলে তাই নিজেকেও খাপ খাইয়ে নিতে হয় আরামদায়ক পোশাকে এবং সাজসজ্জায়। পাশাপাশি শরীরকে সুস্থ রাখতে প্রয়োজন সঠিক খাবার গ্রহণ। চলুন জেনে নেই গরমে স্বস্তির পোশাক ও শরীর সুস্থ রাখার উপায়--

পোশাকে আরাম :

গরম থেকে রেহাই পেতে সব সময়ই প্রাধান্য দেওয়া হয় পোশাককে।

এখন আবহাওয়াটাও একটু গোলমেলে। মাঝে মাঝে গরম এসে আবার ঝিরিঝিরি বৃষ্টির সাথে ঠান্ডা বাতাসে মেলে স্বস্তি। এসময় পোশাক নির্বাচনে তাই একটু বেশিই খেয়াল রাখতে হয়।

ফ্যাশন ডিজাইনাররা বলছেন, প্রাকৃতিক কারণেই গরমে সুতির ঢিলেঢালা পোশাকই আরামদায়ক। সুতি কাপড়ে তৈরি কামিজ, কুর্তি, ফতুয়া, কাফতানসহ সব ধরনের পোশাকই পাওয়া যায়  পালাজো বা প্যান্ট কাট সালোয়ার এর সাথে ভালো লাগে কামিজ বা কুর্তি। আর ফ্লোরাল প্রিন্ট ফ্যাশনে বেশ কবছর ধরেই খুব জনপ্রিয়। তাই হালকা রঙের ফ্লোরাল প্রিন্টের যেকোনো প্যাটার্ন এর পোশাক বেছে নিতে পারেন। গরমের সময় পোশাকের রঙে প্রাধান্য দেওয়া যেতে পারে যেকোনো হালকা শেড। যেমন অফহোয়াইট, পিংক, স্কাই ব্লু, হালকা বেগুনি, লেমন, লাইট গ্রিন, লেমন, কাঁচা হলুদ এই রঙগুলো। সাদাও বেছে নিতে পারেন অনায়াসে। এটা শুধু তাপ শোষণ থেকেই বিরত রাখে না, বরং চোখের জন্যও এনে দেয় স্বস্তি। অনেকে গরমে স্লিভলেস পোশাকে স্বাচ্ছন্দ্যবোধ করে। স্লিভলেস পরতে না চাইলে এ সময় বড় হাতার বদলে কিছুটা ছোট হাতার পোশাক পরুন। ম্যাগি, থ্রি-কোয়ার্টার হাতায় অনেকটা আরাম বোধ করবেন। এ সময় পোশাকের গলার কাটিংএ কলার এড়িয়ে গোল, ভি, স্কয়ার, ডিম্বাকার গলাগুলো পরতে পারেন। তবে কোনো অনুষ্ঠান বা রাতের আয়োজনে ভিন্ন কিছু পরতে চাইলে হালকা কাজের পিওর সিল্ক, মসলিন বা হাফ সিল্কের শাড়িও বেছে নেওয়া যেতে পারে।

হালকা সাজে স্নিগ্ধ :

এসময়ের খামখেয়ালি আবহাওয়ায় ত্বকও চলে যায়  নিয়ন্ত্রণের বাইরে। জারা'স বিউটি লাউঞ্জ এর রুপ বিশেষজ্ঞ ফারহানা রুমি বলেন, এই আবহাওয়ায় মেকআপের পাশাপাশি খুব গুরুত্বপূর্ণ হলো স্কিন কেয়ার। কারণ শুষ্কতা আর আদ্রতা মিলিয়ে ত্বকের বেহাল দশা হয়ে যায়। এসময় ত্বক মাঝে মাঝে শুষ্ক হয়ে যায় তো আবার তৈলাক্ত ভাব চলে আসে। তাই মেকঅআপের আগে ত্বকটাকে স্বাস্থ্যউজ্জ্বল রাখা বেশি জরুরি। এর জন্য যত্ন নিতে হবে নিয়মিত। জেনে নেওয়া যাক এসময়ের মেকআপটা কেমন হবে। মেকআপের ক্ষেত্রে ট্রেন্ড এ খুব বেশি পরিবর্তন আসে না যদিও। শীতকালে মেকআপটা যেমন ভারী হতে পারে গরমে একটু হালকা ভাব নিয়ে আসলেই হয়। তৈলাক্ত ত্বক যাদের তারা মেকআপের আগে ওয়েল ফ্রি ফেসওয়াস দিয়ে মুখ ধুয়ে তারপর ২/৩ মিনিট মুখে বরফ ঘসবেন। এতে আর ফেসওয়েল বের হওয়া কমে যাবে এবং মেকআপ তৈলাক্ত হবে না। বাইরে যাবার আগে প্রাইমার ব্যাবহার করতে হবে। এতে তক ভালো থাকবে ,এবং মেকআপ দীর্ঘ সময় পর্যন্ত থকলেও নষ্ট হবে না। তার আগে মুখে একটু বরফ ঘষে নিতে পারেন। এতেও মেকআপ দীর্ঘস্থায়ী হয়। তবে বাইরে বের হলে প্রথম এবং প্রধান কাজ সানব্লক দিতে অবশ্যই ভুলবেন না। এসময় চোখে হালকা সাজটাই ভালো লাগে। বেইজ মেকআপের সাথে হালকা শেডের আইশ্যাডো, আইলাইনার এর সাথে হালকা কাজল, ন্যুড কালার বা ম্যাচিং লিপস্টিকে যেকোনো পোশাকেই বেশ পরিপাটি লাগে। সাথে চুলটা মুখের আদলে মিলিয়ে বেঁধে নিতে পারেন বা ছোট চুল ছেড়েও রাখতে পারেন। আর বাইরে থেকে ফিরে ত্বক খুব ভালোভাবে ক্লিনজার পরিষ্কার করতে হবে। এরপর একটি এলকোহল মুক্ত টোনার ব্যাবহার করতে হবে। এলকোহল ত্বক কে শুষ্ক করে দেয়। আর দিনের  মেকআপে ব্লাসন বা সাইনার ব্যাবহার না করাই ভালো।

সঠিক খাবার : 

এসময় প্রচুর পানি পান করা প্রয়োজন। সেই সাথে গ্রহণ করতে হবে সুষম এবং সঠিক খাবার।

news24bd.tv/এমি-জান্নাত    

;