জানাজা সম্পন্ন, পুরো গ্রাম পুরুষশূন্য, আতঙ্কে ঈদ মাটি!
জানাজা সম্পন্ন, পুরো গ্রাম পুরুষশূন্য, আতঙ্কে ঈদ মাটি!

কুষ্টিয়ায় ফোর মার্ডারের ঘটনা

জানাজা সম্পন্ন, পুরো গ্রাম পুরুষশূন্য, আতঙ্কে ঈদ মাটি!

জাহিদুজ্জামান, কুষ্টিয়া

আধিপত্য বিস্তারের পুরনো বিরোধের জের ধরে ঈদের আগের দিন ইফতারের কিছু আগে রক্তক্ষয়ী সংঘর্ষে ৪ জন নিহতের ঘটনায় কুষ্টিয়ার ঝাউদিয়া ইউনিয়নের আস্তানগর গ্রাম এখন পুরুষশূন্য। একদিকে শোক অন্যদিকে আতঙ্কে ঈদ মাটি হয়ে গেছে এই গ্রামের সব মানুষের। কুষ্টিয়া ও ঝিনাইদহ জেলা থেকে বিপুল পরিমাণ পুলিশ মোতায়েন করা হয়েছে। এই গ্রামে সংঘর্ষ যাতে নতুন করে না বাঁধে বা আশপাশের গ্রামগুলোতে ছড়িয়ে না পড়ে সে ব্যাপারে প্রশাসনকে উদ্যোগ নিতে বলছেন স্থানীয় জনপ্রতিনিধি ও গ্রামবাসীরা।

এদিকে বৃষ্টির মধ্যেই মঙ্গলবার বিকেলে জানাজা শেষে ঝাউদিয়ার আস্তানগর গোরস্থানে নিহত ৪ জনের দাফন সম্পন্ন হয়েছে। এলাকার হাজার হাজার মানুষ জানাজায় অংশ গ্রহণ করেন। সংঘর্ষে আহতরা এখনও কুষ্টিয়া জেনারেল হাসপাতালে চিকিৎসাধীন রয়েছেন। এদিকে এ ঘটনায় মঙ্গলবার পর্যন্ত থানায় কোনো মামলা দায়ের হয়নি। তবে কুষ্টিয়া ইসলামী বিশ্ববিদ্যালয় থানার ওসি মোস্তাফিজুর রহমান রতন জানিয়েছেন, এ ঘটনায় মামলা দায়েরের প্রস্তুতি চলছে। সংঘর্ষের পর থেকে ওই এলাকায় অতিরিক্ত পুলিশ মোতায়েন করা হয়েছে।

এ ঘটনার জের ধরেই এখন থমথমে পরিস্থিতি বিরাজ করছে কুষ্টিয়া ঝাউদিয়া ইউনিয়নের আস্তানগর গ্রামে। ঈদ আনন্দের বদলে গ্রামে এখন শোক আর আতঙ্ক। শোকবিহ্বল নিহত পরিবারের সদস্যরা এ ঘটনায় দোষীদের কঠোর শাস্তি দাবি করেছেন।  

উল্লেখ্য, কেরামত আলী ও ফজলু মন্ডলের দুই গ্রুপের মধ্যে দীর্ঘদিন ধরে বিরোধ লেগে আছে এই গ্রামে। প্রায়ই ঘটে সংঘর্ষের ঘটনা। তবে এবার স্থায়ীভাবে শান্তিপূর্ণ সহাবস্থান চান গ্রামের মানুষ।

news24bd.tv/desk

;