'৫৫ স্বাক্ষরের পর ভারত থেকে বাংলাদেশে ট্রাক ঢোকে, সময় লাগে ১৩৮ ঘণ্টা'
'৫৫ স্বাক্ষরের পর ভারত থেকে বাংলাদেশে ট্রাক ঢোকে, সময় লাগে ১৩৮ ঘণ্টা'

'৫৫ স্বাক্ষরের পর ভারত থেকে বাংলাদেশে ট্রাক ঢোকে, সময় লাগে ১৩৮ ঘণ্টা'

অনলাইন ডেস্ক

বিশ্বব্যাংকের ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তা সিসিল ফ্রুম্যান দক্ষিণ এশিয়ার সংযোগ ব্যবস্থার এক নাজুক চিত্র তুলে ধরে বলেছেন, ‘সংযোগের বিশাল পরিকল্পনা ও অবকাঠামোগত উন্নয়ন সত্ত্বেও এটি এখনো বিশ্বের সবচেয়ে কম সুসংহত অঞ্চল। এ অঞ্চলের মোট বাণিজ্যের মাত্র ৫ শতাংশ নিজেদের মধ্যে হয়।

ভারত সফরকালে ভারতীয় গণমাধ্যম ‘দ্য প্রিন্ট’ এর সঙ্গে এক সাক্ষাতকারে এ অভিমত ও পর্যবেক্ষণ দেন সিসিল ফ্রুম্যান।

সিসিল ফ্রুম্যান বলেন, এখানে একটি ট্রাককে সীমান্ত পেরিয়ে ভারত থেকে বাংলাদেশে যেতে ১৩৮ ঘণ্টা সময় লাগে এবং এজন্য ২২টি নথি এবং ৫৫টি স্বাক্ষরের প্রয়োজন হয়।

ফলে অনেক দিক থেকেই দক্ষিণ এশিয়া অঞ্চলটি সুসংহত নয়।

বিশ্বব্যাংকের রিজিওনাল ইন্টিগ্রেশন অ্যান্ড এনগেজমেন্ট ইন সাউথ এশিয়া রিজিয়ন (এসএআর) এর পরিচালক সিসিল ফ্রুম্যান আরো বলেন, এ অঞ্চলকে আরো সংহত করা গেলে ও যোগাযোগ নির্বিঘ্ন করা সম্ভব হলে বাণিজ্য ৪৪ বিলিয়ন ডলার পর্যন্ত বাড়ানো সম্ভব।

বিশ্বব্যাংকের ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তা বলেন, দক্ষিণ এশিয়ায় আঞ্চণিক বাণিজ্য মোট বাণিজ্যের মাত্র ৫ শতাংশ যা আমাদের হিসাবে যেটা সম্ভব তার মাত্র তিনভাগের একভাগ। তুলনা করে তিনি বলেন, দশ সদস্যের আসিয়ান দেশগুলোর মোট বাণিজ্যের ২৫ শতাংশ আঞ্চলিক বাণিজ্য। আর ২৭ সদস্যের ইউরোপীয় ইউনিয়ন (ইইউ) এর ৬০ শতাংশ বাণিজ্যই অঞ্চলভিত্তিক।

ফ্রুম্যান বলেন, অধিকতর সংহতি প্রবৃদ্ধির একটি উৎস। এটি সমৃদ্ধি ও অন্তর্ভুক্তিরও মাধ্যম। আমরা একাধিক ক্ষেত্রে এর সুফল দেখতে পাই।

সূত্র: দ্য প্রিন্ট

news24bd.tv তৌহিদ

;