বিদ্যানন্দের সুইমিংপুলে পথশিশুদের অন্যরকম ঈদ আনন্দ
বিদ্যানন্দের সুইমিংপুলে পথশিশুদের অন্যরকম ঈদ আনন্দ

সংগৃহীত ছবি

বিদ্যানন্দের সুইমিংপুলে পথশিশুদের অন্যরকম ঈদ আনন্দ

অনলাইন ডেস্ক

রাজধানীর কারওয়ান বাজারে বসে স্বেচ্ছাসেবী সংগঠন বিদ্যানন্দের ভ্রাম্যমাণ বিনোদনকেন্দ্র। দুপুর গড়িয়ে বিকেল হতেই সেখানে হাজির কয়েকশ পথশিশু। ঈদের ছুটিতে বিত্তবানরা যখন রিসোর্ট, অ্যামিউজমেন্ট পার্কে ভিড় করছেন, ঠিক তখন সুবিধাবঞ্চিত শিশুদের বিনোদনের জন্য এগিয়ে এসেছে বিদ্যানন্দ।

বুধবার (৪ মে) বিকেলে বিদ্যানন্দের ব্যতিক্রমধর্মী এ আয়োজন ছিল চোখে পড়ার মতো।

যেখানে শিশুদের জন্য ছিল একাধিক সুইমিংপুল। ছিল ট্রেন, নাগরদোলা ও চরকির ব্যবস্থাও। এ বিনোদনকেন্দ্রে ঘুরে সবার চোখে মুখেই ছিল আনন্দ।

‘সবাই মিলে উৎসবে, সবাই মিলে বাংলাদেশ’ শিরোনামে ঈদের দিন থেকে বিদ্যানন্দের এ বিনোদনকেন্দ্রটি চালু হয়। সেখানে নাগরদোলা ছাড়াও ঘোড়ার গাড়ি, জাম্পিং প্যাডে চড়েছে শিশু-কিশোররা। এছাড়া তাদের জন্য মুখেরোচক খাবারের ব্যবস্থাও রাখা হয়।

বিদ্যানন্দ ফাউন্ডেশনের হেড অব কমিউনিকেশন সালমান খান বলেন, রমজানজুড়েই আমাদের বিভিন্ন রকমের সেবামূলক কার্যক্রম ছিল। ঈদের আগে চট্টগ্রাম থেকে বাসে করে শ্রমজীবী মানুষকে উত্তরাঞ্চলের বিভিন্ন জেলায় সম্পূর্ণ বিনামূল্যে বাড়িতে পৌঁছে দেওয়া হয়। চাঁদরাতে আমরা কাওরান বাজারে নামমাত্র মূল্যে কেনাকাটা করার ব্যবস্থা করেছিলাম। সুবিধাবঞ্চিতদের জন্য বিনোদনকেন্দ্রের ব্যবস্থা করেছি। সেখানে শিশুরা অনেক মজা করছে।

তিনি বলেন, সুবিধাবঞ্চিত শিশুরা পার্ক, বিনোদনকেন্দ্রে যেতে পারে না। তাদের জন্য এ আয়োজনটি ঈদের দিন সকাল থেকেই শুরু হয়। তবে বৃষ্টির কারণে একটু সমস্যা হয়েছিল। বৃষ্টি থেমে যাওয়ার পর আবার এটি চালু করেছি।

ফেসবুক পেজে বিদ্যানন্দ জানায়, ‘পেটের ক্ষুধা দূর করতে সবাই এগিয়ে আসে। কিন্তু মনের ক্ষুধা মেটাতে কয়জন চিন্তা করেন? ঈদে পথশিশুদের গন্তব্য পথে পথেই। যাদের প্রবেশের অনুমতি মেলে না ওয়াটার পুল কিংবা বিনোদন পার্কে। সেই পথেই আমরা বসিয়েছি পথশিশুদের মিনি ওয়াটার পার্ক। সারাদিন দৌঁড়-ঝাঁপ কিংবা আনলিমিটেড আনন্দ। ’

অন্য উদ্যোগের মতোই সংগঠনটির এ কার্যক্রম বেশ সাড়া ফেলেছে। নেটিজেনরা সাধুবাদ জানিয়ে বিভিন্ন মন্তব্যও করছেন। মামুনুর রশীদ নামে একজন ফেসবুক ব্যবহারকারী লিখেছেন, ‘বিদ্যানন্দ বাংলাদেশের সেরা স্বেচ্ছাসেবী সংগঠন। ’

news24bd.tv/desk 

;