বালির ৭০০ বছরের গাছের নিচে নগ্ন ফটোশুট, বিপাকে রুশ দম্পতি
বালির ৭০০ বছরের গাছের নিচে নগ্ন ফটোশুট, বিপাকে রুশ দম্পতি

বালির ৭০০ বছরের গাছের নিচে নগ্ন ফটোশুট, বিপাকে রুশ দম্পতি

অনলাইন ডেস্ক

ইন্দোনেশিয়ার বালিতে ৭০০ বছরের পুরনো একটি বটবৃক্ষের নিচে নগ্ন হয়ে ছবি তোলায় অভিযোগে এক রাশিয়ান দম্পতিকে দেশে ফেরত পাঠানো হয়েছে। এনডিটিভি জানায়, শুক্রবার (৬ মে) ইন্দোনেশিয়ার হলিডে আইল্যান্ডের কর্মকর্তারা বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন।

দম্পতির নাম আলিনা ফাজলিভা। ওই পর্যটকের ইনস্টাগ্রামে হাজারো ফলোয়ার রয়েছে।

ছবিটি তার স্বামী আন্দ্রেই ফাজলেভ তুলেছেন। ছবিটি তোলার পরই তা ইনস্টাগ্রামে ভাইরাল হয়ে যায়। এদিকে বালিনিজ বিভিন্ন সম্প্রদায়ও এ ঘটনায় ক্ষেপে যায়। পর্বত গাছ এবং অন্যান্য প্রাকৃতিক সৌন্দর্যকে বালিনিজ সংস্কৃতিতে দেবতাদের আবাসস্থল হিসেবে মনে করা হয়।

বালির অভিবাসন কর্মকর্তা জামারুলি মাহিহুরুক শুক্রবার সংবাদমাধ্যমকে বলেন, তারা সামাজিক রীতি নীতির বিরুদ্ধে কাজটি করেছেন। একারণে তাদের পুনরায় ফেরত পাঠানো হচ্ছে।

তিনি আরও জানান, এই দম্পতিকে আরও ছয় মাসের জন্য নিষেধাজ্ঞা দেওয়া হবে। এছাড়া ওই এলাকা পরিষ্কার করার কাজেও তারা যোগ দেবেন।
এদিকে আলিনা ফাজলিভা এ ঘটনার জন্য ইনস্টাগ্রামে ক্ষমা চেয়ে বলেছেন, আমি বড় ভুল করেছি। এমন ঐতিহ্য ও সম্মানের জায়গাকে আরও সম্মানের সঙ্গে দেখা উচিত। বালির গভর্নর ওয়ান কোস্টার এ বিষয়ে বলেছেন, এরপর থেকে বালিতে এমন অসম্মান সহ্য করা যাবে না।

news24bd.tv তৌহিদ

;