এক ছেলের জন্য দুই দল ছাত্রীর চুলোচুলি!
এক ছেলের জন্য দুই দল ছাত্রীর চুলোচুলি!

সংগৃহীত ছবি

এক ছেলের জন্য দুই দল ছাত্রীর চুলোচুলি!

অনলাইন ডেস্ক

দুটি স্কুলের ছাত্রীদের মারামারি এবং চুলোচুলির একটি ভিডিও ভাইরাল হয়েছে। ভিডিওতে এ সময় একে অপরকে লক্ষ্য করে কিল-ঘুষি, লাথি ও চুল ধরে টানা হেঁচড়া করতে দেখা যায়। খবর এনডিটিভি। ভারতের বেঙ্গালুরু প্রদেশের পৃথক দুটি স্কুলের ছাত্রীদের মধ্যে এই ঘটনা ঘটে।

ভিডিওতে দেখা যায়, মঙ্গলবার বেঙ্গালুরুর ভিত্তাল মালিয়া সড়কের কাছে দুই দল ছাত্রী মারামারি করছেন। চুল ধরে টানাটানি করার সময় এক ছাত্রীর হাতে বেসবল ব্যাটও দেখা যায়। ভিডিওতে দেখা যায়, এক ছাত্রীকে সিঁড়ি দিয়ে টেনে নামানো হচ্ছে। পরে তার মাথা ধরে দেওয়ালে ধাক্কা মারেন এক ছাত্রী।

একদল ছাত্রীর শরীরে স্কুলের ইউনিফর্ম থাকলেও অন্য দলটি ছিল সাধারণ পোশাকে। ছাত্রীদের লাথি, কিল-ঘুষি এবং ধাক্কাধাক্কির সময় ওই এলাকা থেকে কিছু শিক্ষার্থীকে পালিয়ে যেতে দেখা যায়।

ছাত্রীদের মারামারির এই ভিডিও সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে হাজার হাজার মানুষ দেখেছেন। স্থানীয় কিছু বাসিন্দা ছাত্রীদের মারামারি থামানোর চেষ্টা করেন। ভিডিওর শেষে দেখা যায়, এক ছাত্রীর নাক রক্তাক্ত। তিনি দুই বন্ধুর সহায়তায় ওই এলাকা থেকে চলে যান।

তবে এই বিষয়ে পুলিশের কোনও মন্তব্য পাওয়া যায়নি এবং এখন পর্যন্ত মামলাও দায়ের হয়নি। কিন্তু দুই দল ছাত্রীর মারামারির এই ঘটনা নিয়ে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে নানা ধরনের গুজব ছড়িয়েছে।

টুইটারে কেউ কেউ দাবি করেছেন, এক ছেলেকে নিয়ে মারামারি করেছেন দুই ছাত্রী। পরে সেই মারামারিতে তাদের বন্ধুরা যোগ দেওয়ায় তা সবার মাঝে ছড়িয়ে পড়ে। সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে ছাত্রীদের মারামারির একটি ছবিও শেয়ার করেছেন লোকজন। এতে দেখা যায়, দুই ছাত্রীর মারামারির সময় মাঝে এক ছেলে দাঁড়িয়ে আছেন।

যে দুই ছাত্রী মারামারি শুরু করেছিলেন তারা বেঙ্গালুরুর ভিন্ন দু’টি প্রখ্যাত স্কুলের ছাত্রী। যদিও কিছু টুইটার ব্যবহারকারী এই ধরনের তুচ্ছ বিষয় নিয়ে লড়াই করায় মেয়েদের ব্যঙ্গ করেছেন। আবার অনেকে উদ্বেগও প্রকাশ করেছেন।
news24bd.tv/আলী