ইউরোপে ভয়াবহ রূপ নিচ্ছে দাবানল
ইউরোপে ভয়াবহ রূপ নিচ্ছে দাবানল

সংগৃহীত ছবি

ইউরোপে ভয়াবহ রূপ নিচ্ছে দাবানল

মাসুদ রানা

ইউরোপে ভয়াবহ রূপ নিচ্ছে দাবানল। পর্তুগিজ সরকার জানিয়েছে, গত সপ্তাহে তাপদাহে ৬৫৯ জনের মৃত্যু হয়েছে। এদিকে দক্ষিণ-পশ্চিমাঞ্চলে দাবানলের ঝুঁকিতে পড়া ১৪ হাজারের বেশি মানুষ সরিয়ে নিয়েছে ফ্রান্স। স্পেন, ক্রোয়েশিয়া ও গ্রিসেও দ্রুত বাড়ছে দাবানল।

ঘরবাড়ি ছেড়ে পালিয়ে যাচ্ছে হাজারো মানুষ।  

দাবানলের গ্রাসে ইউরোপের একরের পর এক এলাকা। পর্তুগাল, স্পেন, ফ্রান্স, গ্রিস ও মরক্কোতে দাবদাহের ফলে সৃষ্ট দাবানল ভয়াবহ রূপ নিচ্ছে। দমকলকর্মীরা আগুন নেভাতে প্রাণপণ লড়ছে। দমকলকর্মী ছাড়াও, দক্ষিণ-পশ্চিম ইউরোপে তীব্র গরমে শত শত মানুষের মৃত্যু হচ্ছে বলে জানিয়েছে ইউরোপের বিভিন্ন গনমাধ্যম।

ফ্রান্সের দক্ষিণ-পশ্চিম অঞ্চলের ২৭ হাজার একর এলাকায় দাবানল ছড়িয়েছে, ওই অঞ্চলের ১৪ হাজারেও বেশি বাসিন্দাকে অন্যত্র সরানো হয়েছে। বেহাল দশা স্পেনেরও, ক্ষয়ক্ষতি ছাড়াও তীব্র দাবদাহে দেশটিতে গত পাঁচ দিনে ৩৬০ জন প্রাণ হারিয়েছে। জুন মাসের মাঝামাঝি পর্যন্ত পর্তুগালের প্রায় এক লাখ একর জঙ্গল দাবানলে পুড়েছে। নিরাপদ আশ্রয়ে ছুটছে হাজারো মানুষ।  

চলতি গ্রীষ্মে পর্তুগাল এবং স্পেনে এটি দ্বিতীয় দাবদাহ চলছে। পর্তুগালে তাপমাত্রার পারদ ছুঁয়েছে ৪৭ ডিগ্রি সেলসিয়াসে। স্পেনে তা ৪৫ ডিগ্রি সেলসিয়াস। ব্রিটেনেও দাবানল ছড়িয়ে পড়ার আশঙ্কা করছেন আবহাওয়া বিজ্ঞানীরা। বিজ্ঞানীরা এর জন্য জলবায়ু পরিবর্তনকে দায়ী করছেন। তাঁদের পূর্বাভাস অনুযায়ী, আরও ঘন ঘন এ ধরনের চরম আবহাওয়ার মুখোমুখি হতে হবে।

news24bd.tv/রিমু