কারাগারে ঈদ : যা ছিলো মামুনুলের খাবারের মেন্যুতে
কারাগারে ঈদ : যা ছিলো মামুনুলের খাবারের মেন্যুতে

কারাগারে ঈদ : যা ছিলো মামুনুলের খাবারের মেন্যুতে

অনলাইন ডেস্ক

হেফাজতে ইসলামের বিলুপ্ত কেন্দ্রীয় কমিটির যুগ্ম-মহাসচিব ও ঢাকা মহানগর শাখার সাধারণ সম্পাদক মামুনুল হকের এবারের ঈদ কাটছে জেলে। বিভিন্ন মামলায় কারাবন্দি মামুনুলের এবারের ঈদে তার পরিবারের হাতের খাবার খাওয়া হয়নি। তবে অন্যান্য কারাবন্দির মতো তিনিও কারা কর্তৃপক্ষের আয়োজনে ঈদুল ফিতরের দিন বিশেষ খাবার পেয়েছেন।

জানা গেছে, কারাগারে যাওয়ার পর একটি ওয়ার্ডের আইসোলেশন সেন্টারে রয়েছেন মামুনুল হক।

তিনি সেখানে ১৪ দিন কোয়ারেন্টিনে থাকবেন।   ঈদের দিন সকালে তাকেও মুড়ি আর পায়েস দেওয়া হয়েছে। জুমার নামাজের পর বন্দিদের জন্য সাদা ভাতের আয়োজন করা হয়। সঙ্গে ছিল ডাল, রুই মাছ আর আলুর দম। রাতের বিশেষ আয়োজনে তারা পাবেন পোলাও। এর সঙ্গে থাকবে গরুর মাংস, ডিম, মিষ্টান্ন এবং পান-সুপারি। যারা গরুর মাংস খান না তাদের জন্য থাকবে খাসির মাংস।

কারা মহাপরিদর্শক ব্রিগেডিয়ার জেনারেল মো. মোমিনুর রহমান মমিন সংবাদমাধ্যমকে বলেন, অন্য সব বন্দির জন্য একই খাবারের আয়োজন হয়েছে। সবাই একই খাবার খাবেন। অন্যান্য দিনের থেকে প্রতিবারই ঈদের দিন একটু উন্নতমানের খাবারের আয়োজন করা হয়।

গত ১৮ এপ্রিল দুপুরে রাজধানীর মোহাম্মদপুরের জামিয়া রাহমানিয়া মাদ্রাসা থেকে হেফাজতে ইসলামের যুগ্ম মহাসচিব মাওলানা মামুনুল হককে গ্রেফতার করে পুলিশ।

ভারতের প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদির সফরের সময় ২৬ থেকে ২৮ মার্চ পর্যন্ত সহিংসতায় সারাদেশে ১৭ জনের মৃত্যু হয়। এসব সহিংসতার ঘটনায় সারাদেশে প্রায় অর্ধশতাধিক মামলা হয়েছে। মামুনুলকে এসব ঘটনার মূল ইন্ধনদাতা মনে করছে পুলিশ।

উল্লেখ্য, প্রতি ঈদেই কারাগারে বন্দিদের জন্য বিশেষ খাবারের আয়োজন করা হয়ে থাকে। এ দিন খাবারের তালিকায় থাকে মাছ, মাংস, পোলাও, ডিম, ফিরনি-পায়েস, মিষ্টান্ন ইত্যাদি। এবারও দেশের সব কারাগারেই এ ধরনের খাবারের আয়োজন থাকছে।  

news24bd.tv/আলী