কুষ্টিয়ায় প্রাইভেট কারে ফেনসিডিল পাচার : ৩ জনের যাবজ্জীবন কারাদণ্ড
কুষ্টিয়ায় প্রাইভেট কারে ফেনসিডিল পাচার : ৩ জনের যাবজ্জীবন কারাদণ্ড

প্রতীকী ছবি

কুষ্টিয়ায় প্রাইভেট কারে ফেনসিডিল পাচার : ৩ জনের যাবজ্জীবন কারাদণ্ড

জাহিদুজ্জামান, কুষ্টিয়া

কুষ্টিয়ায় প্রাইভেট কারে করে ফেনসিডিল পাচারের দায়ে ৩ জনের যাবজ্জীবন কারাদণ্ড দিয়েছেন আদালত। আজ দুপুর ১টার দিকে কুষ্টিয়া অতিরিক্ত জেলা ও দায়রা জজ প্রথম আদালতের বিচারক মো. তাজুল ইসলাম এ রায় দেন।

আদালতের পাবলিক প্রসিকিউটর (পিপি) অনুপ কুমার নন্দী খবরটি নিশ্চিত করেছেন। তিনি বলেন, আদালত আসামিদের প্রত্যেককে ২০ হাজার টাকা জরিমানা, অনাদায়ে আরও এক বছরের সশ্রম কারাদণ্ড দিয়েছেন।

যাবজ্জীবন কারাদণ্ড প্রাপ্তরা হলেন- ভোলা জেলার দৌলতখান উপজেলার চরপাতা গ্রামের জুয়েল হাসান ওরফে আব্দুল্লাহ, কুষ্টিয়ার দৌলতপুর উপজেলার ঠোটারপাড়া গ্রামের আলমগীর হোসেন বিশ্বাস এবং চরদিয়াড় গ্রামের বাজু বিশ্বাস। রায় ঘোষণার সময় আলমগীর হোসেন বিশ্বাস ও বাজু বিশ্বাস আদালতে উপস্থিত ছিলেন। অপর আসামি পলাতক রয়েছেন। রায় ঘোষণার পর পরই পুলিশ পাহারায় দুই আসামিকে জেলা কারাগারে পাঠানো হয়।

মামলার বিবরণে জানা যায়, ২০১৭ সালের ১৯ জুন কুষ্টিয়ার ভেড়ামারায় লালন শাহ সেতুর কাছে আসামিদের প্রাইভেট কার তল্লাস করে পুলিশ। এসময় কারের যাত্রী জুয়েল হাসান ও বাজু বিশ্বাসের কোমরে টেপ দিয়ে আটকে রাখা ১৯ বোতল ফেন্সিডিল পাওয়া যায়। পরে কারের দরজাসহ বিভিন্ন জায়গায় লুকিয়ে রাখা আরো ২০০ বোতল ফেন্সিডিল পায় পুলিশ। এ ঘটনায় সেদিনই তাদের বিরুদ্ধে মাদকদ্রব্য নিয়ন্ত্রণ আইনে ভেড়ামারা থানায় মামলা হয়।

আসামিদের বিরুদ্ধে দায়ের করা মামলাটি তদন্ত শেষে তাদের বিরুদ্ধে ২০১৭ সালের ১০ আগস্ট আদালতে অভিযোগপত্র দাখিল করেন তদন্তকারী কর্মকর্তা এম এ কুদ্দুস। সাক্ষ্য প্রমাণ শেষে ১৯৯০ সালের মাদকদ্রব্য নিয়ন্ত্রণ আইন ১৯(১) টেবিল ৩(খ) ধারার অধীনে অপরাধ প্রমাণিত হওয়ায় আসামিদের যাবজ্জীবন সশ্রম কারাদণ্ড দিয়েছেন আদালত।

news24bd.tv তৌহিদ

;