ধর্ষণের অপরাধ স্বীকার করে পুলিশ সদস্যের জবানবন্দি

নিজস্ব প্রতিবেদক, খুলনা

ধর্ষণের অপরাধ স্বীকার করে পুলিশ সদস্যের জবানবন্দি

খুলনার তেরখাদায় চতুর্থ শ্রেণির এক ছাত্রীকে ধর্ষণের অভিযোগ স্বীকার করে আদালতে জবানবন্দি দিয়েছেন গ্রেপ্তার হওয়া পুলিশ সদস্য রেজাউল শিকদার (২৩)।

মঙ্গলবার দুপুরে খুলনার সিনিয়র জুডিসিয়াল ম্যাজিস্টেট আদালতে (ঙ অঞ্চল) এ জবানবন্দি রেকর্ড করা হয়। মামলার তদন্ত কর্মকর্তা ও তেরখাদা থানা পুলিশের উপ-পরিদর্শক মো. শফিকুল ইসলাম এ তথ্য নিশ্চিত
করেছেন।

তিনি বলেন, স্বীকারোক্তিমূলক জবানবন্দি দেওয়ায় আদালতে রিমান্ডের আবেদন জানানো হয়নি।

আরও পড়ুন: 


ইনজেকশন দিয়ে অচেতন করে রোগীকে ধর্ষণ!


জানা যায়, সোমবার বেলা ১১টার দিকে তেরখাদার মোকামপুর গ্রামে ধর্ষণের ঘটনা ঘটে। রেজাউল শিশুটিকে তার ঘরে ডেকে নিয়ে ধর্ষণ করে। এ সময় শিশুটির চিৎকারে আশপাশের লোকজন ছুটে এসে রেজাউলকে হাতেনাতে আটক করে থানায় সোপর্দ করেন। অভিযুক্ত রেজাউল শিকদার ওই গ্রামের আলাম আলী শিকদারের ছেলে। তিনি নাটোর জেলা পুলিশ লাইনে কর্মরত। সম্প্রতি ছুটিতে বাড়িতে এসেছে।

আরও পড়ুন: 


শতাধিক ছাত্রীকে ধর্ষণ ও শ্লীলতাহানি করে ২২ বছরের ছাত্র!


পুলিশ জানায়, ধর্ষণের শিকার শিশুটিকে মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। এ ঘটনায় তারা বাবা বাদী হয়ে থানায় নারী ও শিশু নির্যাতন দমন আইনে মামলা করলে অভিযুক্ত পুলিশ সদস্যকে গ্রেপ্তার করে আদালতে পাঠানো হয়।

আরও পড়ুন: 


চার বছর ধরে বোনকে ধর্ষণ করল দুই ভাই


(নিউজ টোয়েন্টিফোর/তৌহিদ)

মন্তব্য