খালেদা জিয়া ইস্যুতে সর্বোচ্চ সতর্কতায় সরকার

অনলাইন ডেস্ক

খালেদা জিয়া ইস্যুতে সর্বোচ্চ সতর্কতায় সরকার

বিএনপি চেয়ারপারসন খালেদা জিয়ার অসুস্থতাকে পুঁজি করে রাজনৈতিক ফায়দা আদায়ের চেষ্টা করছে বিএনপি। তার অসুস্থতাকে কেন্দ্র করে দলের নেতান্ডকর্মীরা সরকারবিরোধী আন্দোলন গড়ে তোলার চেষ্টা করছেন। এ লক্ষ্যে দেশের বিভিন্ন জেলা থেকে নেতান্ডকর্মীদের ঢাকায় জড়ো করার পরিকল্পনা করেছে দলটি। কয়েক লাখ লোক জড়ো করে অনির্দিষ্টকালের জন্য ঢাকার রাজপথ দখলে রাখতে পারে এবং সহিংসতা ঘটানোর আশঙ্কা করছে সরকারের একটি গোয়েন্দা সংস্থা। পরিস্থিতি মোকাবিলায় প্রয়োজনীয় সুপারিশ সংবলিত প্রতিবেদনটি স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ে পাঠানো হয়। এর পরিপ্রেক্ষিতে ঢাকাসহ সারা দেশে সর্বোচ্চ সতর্কতা জারি ও প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নিতে নির্দেশ দিয়েছে স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয়। প্রতিবেদনে বিএনপির ঢাকাসহ দেশের সব কার্যালয় ও আশপাশের এলাকায় নিরাপত্তা জোরদার এবং রাজধানীতে প্রবেশে কড়াকড়ি ও আবাসিক হোটেল-মেসে পুলিশি রেইড চালানোসহ এক ডজন সুপারিশ করা হয়েছে।

নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের একাধিক কর্মকর্তা জানান, বিএনপি চেয়ারপারসন খালেদা জিয়ার অসুস্থতার বিষয়টি সরকারের সর্বোচ্চ পর্যায় থেকে মনিটর করা হচ্ছে। বিষয়টি নিয়ে একাধিক সরকারি গোয়েন্দা সংস্থা প্রতিবেদন দিয়ে কিছু সুপারিশও করেছে। সেই সুপারিশের আলোকে ব্যবস্থা নিতে পুলিশ সদর দফতরসহ সরকারের সংশ্লিষ্ট সব দফতরকে সর্বোচ্চ সতর্কতায় থাকতে বলা হয়েছে। 

এদিকে খালেদা জিয়ার শারীরিক অবস্থা নিয়ে সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে কেউ যাতে গুজব ছড়িয়ে অস্থিতিশীল পরিস্থিতি তৈরি করতে না পারে, সে জন্য ইতিমধ্যে সরকারের উচ্চপর্যায় থেকে পুলিশকে সতর্ক থাকতে বলা হয়েছে। একই সঙ্গে দেশজুড়ে গোয়েন্দা তৎপরতাও বাড়ানো হয়েছে। ঢাকায় কর্মরত যেসব পুলিশ কর্মকর্তা ছুটিসহ বিভিন্ন কারণে ঢাকার বাইরে ছিলেন, কর্মস্থলে তাদের যোগ দিতে বলা হয়েছে বলে পুলিশ সদর দফতর সূত্র নিশ্চিত করেছে।

খালেদা জিয়ার মৃত্যু-পরবর্তী পরিস্থিতি তুলে ধরে পর্যবেক্ষণে আরও বলা হয়, তাঁর মৃত্যু, জানাজা ও দাফন ইত্যাদি কর্মকান্ডকে ঘিরে দলের বিশেষ রাজনৈতিক পরিকল্পনার ছক রয়েছে বলে তথ্য আছে। জানাজা শেষে নেতা কর্মীরা রাজপথে বসে পড়তে পারেন এবং তা সরকার পতনের আন্দোলনে রূপ নিতে পারে বলে আশঙ্কা করা হচ্ছে। 

আরও পড়ুন: 


ফখরুল বললেন, আন্দোলন-আন্দোলন-আন্দোলন

ধর্ষণ মামলায় জামিন: ক্ষমা চাইলেন বিচারক


খালেদা জিয়া চিকিৎসা গ্রহণে বিদেশে যেতে ব্যক্তিগতভাবে ইচ্ছুক নয় মর্মে ইতিমধ্যে একাধিকবার ইচ্ছা প্রকাশ করলেও বিএনপির নেতান্ডকর্মীরা শুধু সরকার-বিরোধিতার স্বার্থে তার অসুস্থতাকে ব্যবহার করছে বলে পর্যবেক্ষণে উল্লেখ করা হয়েছে।

মৃত্যুর সঙ্গে পাঞ্জা লড়ছেন খালেদা জিয়া :

বিএনপির জ্যেষ্ঠ যুগ্ম মহাসচিব রুহুল কবির রিজভী বলেছেন, দলটির চেয়ারপারসন খালেদা জিয়া হাসপাতালে মৃত্যুর সঙ্গে পাঞ্জা লড়ছেন। বুধবারঢাকা জেলা প্রশাসক মো. শহীদুল ইসলামের কাছে স্মারকলিপি দেওয়ার পর এ কথা বলেন তিনি।

রুহুল কবির রিজভী বলেন, ‘খালেদা জিয়া মিথ্যা মামলায় তিন বছর ধরে বন্দী রয়েছেন। এরপর তিনি গুরুতর অসুস্থ হয়ে পড়েন। আমরা আগেও বলেছি, তাঁকে তিলে তিলে নিঃশেষ করতেই বন্দী করা হয়েছে। এর প্রমাণ হলো, তিনি এখন হাসপাতালে মৃত্যুর সঙ্গে পাঞ্জা লড়ছেন।

বিএনপির কর্মসূচি:
খালেদা জিয়ার মুক্তি এবং তাঁর বিদেশে চিকিৎসার দাবিতে আট দিনের কর্মসূচি ঘোষণা করেছে বিএনপি। এসব কর্মসূচি বিএনপিসহ দলটির অঙ্গ ও সহযোগী সংগঠনের উদ্যোগে অনুষ্ঠিত হবে।

বুধবার দুপুরে রাজধানীর নয়াপল্টনে বিএনপির কেন্দ্রীয় কার্যালয়ে আয়োজিত এক যৌথ সভা শেষে সংবাদ সম্মেলনে এসব কর্মসূচি ঘোষণা করেন দলটির মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর।

কর্মসূচি নিয়ে মির্জা ফখরুল বলেন,২৫ নভেম্বর যুবদল ঢাকাসহ সারা দেশে বিক্ষোভ কর্মসূচি পালন করবে, ২৬ তারিখে বাদ জুমা খালেদা জিয়ার মুক্তি ও রোগমুক্তির জন্য দোয়া চাওয়া হবে এবং অন্যান্য সম্প্রদায়ের যাঁরা আছেন, তাঁরা তাঁদের উপাসনালয়ে প্রার্থনা করবেন। ২৮ তারিখে স্বেচ্ছাসেবক দল ঢাকাসহ সারা দেশে বিক্ষোভ করবে, ৩০ তারিখে বিভাগীয় সদরগুলোতে বিএনপির উদ্যোগে সমাবেশ অনুষ্ঠিত হবে।’

এ ছাড়া আগামী ১ ডিসেম্বর ছাত্রদল সারা দেশে সমাবেশ করবে, ২ তারিখে মুক্তিযোদ্ধা দল জাতীয় প্রেসক্লাবের সামনে মানববন্ধন করবে, ৩ তারিখে কৃষক দল ঢাকাসহ সারা দেশে সমাবেশ করবে এবং ৪ তারিখে মহিলা দল মৌন মিছিল করবে।

news24bd.tv/আলী

পরবর্তী খবর

তল্লাশি শেষ, বিমানবন্দরের স্বাভাবিক কার্যক্রম শুরু

অনলাইন ডেস্ক

তল্লাশি শেষ, বিমানবন্দরের স্বাভাবিক কার্যক্রম শুরু

বোমা আতঙ্কে  ঢাকার হযরত শাহজালাল আন্তর্জাতিক বিমানবন্দরে মালয়েশিয়ান এয়ারলাইন্সের একটি ফ্লাইট জরুরি অবতরণ করে। ফ্লাইটটি বুধবার রাত ৯টা ৩৮ মিনিটে মালয়েশিয়ার কুয়ালালামপুর থেকে ঢাকায় নামে। মালয়েশিয়ান বিমানটিতে তল্লাশী করে কোনো বোমা পাওয়া যায়নি। ফ্লাইটটিকে আনুষ্ঠানিকভাবে নিরাপদ ঘোষণা করেছে বিমান বাহিনীর বোমা ডিস্পোজাল ইউনিট।

বুধবার (১ ডিসেম্বর) দিবাগত রাত সাড়ে ১২টার দিকে এটিকে নিরাপদ ঘোষণা করা হয়। এতে বিমানবন্দরের স্বাভাবিক কার্যক্রম শুরু হয়েছে।

রাত পৌনে ১২টায় শাহজালাল আন্তর্জাতিক বিমানবন্দরের পরিচালক গ্রুপ ক্যাপ্টেন এম তৌহিদ উল আহসান বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন। 

ক্যাপ্টেন এম তৌহিদ উল আহসান জানান, বোমা থাকার খবরে মালয়েশিয়ান এয়ারলাইনসের একটি উড়োজাহাজ অবতরণের পর সেটিকে নিরাপদ স্থানে নিয়ে তল্লাশি চালানো হয়। বাংলাদেশ বিমানবাহিনীর বোমা নিষ্ক্রিয়করণ দল এই তল্লাশি অভিযান চালায়। তবে এতে কোনো কিছু পাওয়া যায়নি। 

এর আগে হজরত শাহজালাল আন্তর্জাতিক বিমানবন্দরে বোমা আতঙ্কের কারণে সতর্কতা জারি করা হয়।

সেসময় বিমানবন্দর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) বি এম ফরমান আলী গণমাধ্যমকে বলেন, বিমানবন্দরে একটি ম্যাসেজ আসে যে, ফ্লাইটটিতে বোমা থাকতে পারে।

এরপর নিরাপত্তাকর্মীরা ফ্লাইটটিতে তল্লাশি চালান।

news24bd.tv/আলী

পরবর্তী খবর

বোমা আতঙ্ক : মালয়েশিয়ান উড়োজাহাজে কোনো কিছু পাওয়া যায়নি

অনলাইন ডেস্ক

বোমা আতঙ্ক : মালয়েশিয়ান উড়োজাহাজে কোনো কিছু পাওয়া যায়নি

ঢাকার হযরত শাহজালাল আন্তর্জাতিক বিমানবন্দরে মালয়েশিয়ান এয়ারলাইন্সের একটি ফ্লাইট জরুরি অবতরণ করে। ফ্লাইটটি বুধবার রাত ৯টা ৩৮ মিনিটে মালয়েশিয়ার কুয়ালালামপুর থেকে ঢাকায় নামে।

ওই বিমানে বোমা থাকার খবরে উড়োজাহাজে তল্লাশির পর সংশ্লিষ্ট কর্মকর্তারা জানিয়েছেন, ওই উড়োজাহাজে এখনো পর্যন্ত সন্দেহজনক কোনো কিছু পাওয়া যায়নি। রাত পৌনে ১২টায় শাহজালাল আন্তর্জাতিক বিমানবন্দরের পরিচালক গ্রুপ ক্যাপ্টেন এম তৌহিদ উল আহসান বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন। 

ক্যাপ্টেন এম তৌহিদ উল আহসান জানান, বোমা থাকার খবরে মালয়েশিয়ান এয়ারলাইনসের একটি উড়োজাহাজ অবতরণের পর সেটিকে নিরাপদ স্থানে নিয়ে তল্লাশি চালানো হয়। বাংলাদেশ বিমানবাহিনীর বোমা নিষ্ক্রিয়করণ দল এই তল্লাশি অভিযান চালায়। তবে এতে কোনো কিছু পাওয়া যায়নি। 

এর আগে হজরত শাহজালাল আন্তর্জাতিক বিমানবন্দরে বোমা আতঙ্কের কারণে সতর্কতা জারি করা হয়।

এর আগে বিমানবন্দর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) বি এম ফরমান আলী গণমাধ্যমকে বলেন, বিমানবন্দরে একটি ম্যাসেজ আসে যে ফ্লাইটটিতে বোমা থাকতে পারে। নিরাপত্তাকর্মীরা ফ্লাইটটিতে তল্লাশি চালাচ্ছে।

তবে মালয়েশিয়া থেকে আসা ফ্লাইটটিতে কতজন যাত্রী রয়েছেন, সে ব্যাপারে কিছু জানা যায়নি।

news24bd.tv/আলী

পরবর্তী খবর

ভারত থেকে আসলো আরও ৪৫ লাখ টিকা

অনলাইন ডেস্ক

ভারত থেকে আসলো আরও ৪৫ লাখ টিকা

ভারতের সেরাম ইনস্টিটিউট থেকে অক্সফোর্ড অ্যাস্ট্রাজেনেকার আরও ৪৫ লাখ ডোজ কোভিশিল্ড টিকা দেশে পৌঁছেছে।

বুধবার (১ ডিসেম্বর) রাত ৮টা ১০ মিনিটে এয়ার ইন্ডিয়ার একটি ফ্লাইটে টিকাগুলো হযরত শাহজালাল আন্তর্জাতিক বিমানবন্দরে এসে পৌঁছায়।

বেক্সিমকো ফার্মাসিউটিক্যালসের চিফ অপারেটিং অফিসার (সিওও) রাব্বুর রেজা  বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন।

আরও পড়ুন:

গণপরিবহনে শিক্ষার্থীদের হাফ ভাড়া কার্যকর

হাফ পাস শুধুমাত্র ঢাকায় কার্যকর হবে বললেন এনায়েত উল্লাহ

কুমিল্লায় কাউন্সিলর হত্যা: ৬ হামলাকারী শনাক্ত


 

তিনি বলেন, সেরাম ইনস্টিটিউটের সঙ্গে চুক্তি অনুযায়ী আজ রাতে আরও ৪ দশমিক ৫ মিলিয়ন (৪৫ লাখ) ডোজ টিকা দেশে পৌঁছেছে। এই ডোজগুলো বাংলাদেশ সরকার ও সেরামের সঙ্গে চুক্তির ক্রয় করা টিকা।

news24bd.tv/আলী

পরবর্তী খবর

ঢাকায় বোমা আতঙ্কে ফ্লাইটের জরুরি অবতরণ, চলছে তল্লাশি

অনলাইন ডেস্ক

ঢাকায় বোমা আতঙ্কে ফ্লাইটের জরুরি অবতরণ, চলছে তল্লাশি

ঢাকার হযরত শাহজালাল আন্তর্জাতিক বিমানবন্দরে মালয়েশিয়ান এয়ারলাইন্সের একটি ফ্লাইট জরুরি অবতরণ করেছে। ফ্লাইটটি বুধবার রাত ৯টা ৩৮ মিনিটে মালয়েশিয়ার কুয়ালালামপুর থেকে ঢাকায় নামে।

বিমানবন্দর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) বি এম ফরমান আলী গণমাধ্যমকে বলেন, বিমানবন্দরে একটি ম্যাসেজ আসে যে ফ্লাইটটিতে বোমা থাকতে পারে। নিরাপত্তাকর্মীরা ফ্লাইটটিতে তল্লাশি চালাচ্ছে।

এয়ারপোর্ট আর্মড পুলিশ ব্যাটালিয়নের (এপিবিএন) অতিরিক্ত পুলিশ সুপার মোহাম্মদ জিয়াউল হক বলেন, আমরা কাজ করছি। পরে বিস্তারিত জানাব।

news24bd.tv/আলী

পরবর্তী খবর

ল্যান্ডিং গিয়ারে সমস্যা : চট্টগ্রামে বিমানের জরুরি অবতরণ

অনলাইন ডেস্ক

ল্যান্ডিং গিয়ারে সমস্যা : চট্টগ্রামে বিমানের জরুরি অবতরণ

ফাইল ছবি

বিমানের গিয়ার কাজ না করায় পাইলটের দক্ষতায় বাংলাদেশ বিমানের একটি ফ্লাইট চট্টগ্রামের শাহ আমানত বিমান বন্দরে জরুরি অবতরণ করতে সক্ষম হয়েছে।আজ বুধবার রাত সাড়ে ৯টার পর বিমানটি অবতরণ করে।

ল্যান্ডিং গিয়ারে সমস্যার কারণে ৫০ মিনিট বিলম্বে জরুরি অবতরণ করে বাংলাদেশ বিমানের ফ্লাইটটি। আজ বুধবার রাত সাড়ে ৯টার পর বিমানটি অবতরণ করে।

শাহ আমানত বিমানবন্দরের পরিচালক উইং কমান্ডার ফরহাদ হোসেন খান বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন।

আরও পড়ুন:

গণপরিবহনে শিক্ষার্থীদের হাফ ভাড়া কার্যকর

হাফ পাস শুধুমাত্র ঢাকায় কার্যকর হবে বললেন এনায়েত উল্লাহ

কুমিল্লায় কাউন্সিলর হত্যা: ৬ হামলাকারী শনাক্ত


বিমানবন্দর সূত্র জানিয়েছে, সন্ধ্যায় ঢাকা থেকে বিমান বাংলাদেশ এয়ারলাইন্সের বিজি ৬১৭ ফ্লাইটটি চট্টগ্রামের উদ্দেশে রওনা হয়। চট্টগ্রামে অবতরণের আগে ল্যান্ডিং গিয়ারটি কাজ না করায় ফ্লাইটটি আকাশে বারবার চক্কর দিতে থাকে। ফ্লাইটটি পরিচালনা করছিলেন বিমানের ক্যাপ্টেন রুবায়েত। এতে ৪২ জন যাত্রী ছিলেন।

news24bd.tv/আলী

পরবর্তী খবর