২৫ জুন ,মঙ্গলবার, ২০১৯

শিরোনাম

> অফবিট

 

নিউজ টোয়েন্টিফোর ডেস্ক

১৩ জুন , বুধবার, ২০১৮ ১১:৫০:২৮

৭০ বছর খাবার খান না, তবুও জীবিত!


৭০ বছর খাবার খান না, তবুও জীবিত!

প্রহ্লাদ জানী। -সংগৃহীত ছবি


তিনি পাওহারি বাবা। অর্থাৎ, পবন-আহারি, যিনি পবন বা হাওয়া খেয়েই বেঁচে থাকেন! ৭০ বছর নাকি কোন খাবার না খেয়েই এই পৃথিবীতে টিকে আছেন! ভারতের গুজরাটের এই বাবাকে নিয়ে আলোচনা এখন সর্বত্র। যে কোন সমস্যার সমাধান নাকি তার কাছে কোন ব্যাপারই নয়। দেশ-বিদেশে অসংখ্য ভক্ত রয়েছে তার। যদিও যুক্তিবাদীরা এই পবনহারির বাতাস খেয়ে বেঁচে থাকার বিষয়টি মানতে একেবারেই নারাজ।

গুজরাটের মেহসানায় চারোদ বা চারাদা গ্রামের বাসিন্দা এই যোগীর আসল নাম প্রহ্লাদ জানী। পরেন লাল কাপড়। কপালে লাল টিপ। এক মুখ দাড়িগোঁফ। জাঙ্ক জুয়েলারিও পরেন তিনি। তার দাবি, সাত দশকেরও বেশি সময় ধরে তিনি কিছু না খেয়েই রয়েছেন। ১৮ বছরের বয়সেই তিনি ঠিক করে নিয়েছিলেন, জীবনটা অন্য রকমভাবে কাটাবেন। তখনই শুরু হয় যোগাসন ও বায়ুসাধনা। এরপর ভাত, রুটি, ফল, সবজি, মাছ, মাংস- সব বাদ দিয়ে বাতাস খাওয়া শুরু করেন। প্রহ্লাদ জানীর দাবি, বাতাস খেয়ে তিনি বেশ সুস্থ ও সক্ষম আছেন। ভালো আছেন।

আগেও হইচই হয়েছে এই বাবাকে ঘিরে। এপিজে আবদুল কালাম রাষ্ট্রপতি পদে থাকাকালীন ২০১০ সালে দেশের প্রতিরক্ষা গবেষণা সংস্থা (ডিআরডিও) ও কেন্দ্রীয় সরকারি গবেষণাগারের বিজ্ঞানীরা টানা ১৫ দিন ধরে নজরদারি চালিয়েছিলেন প্রহ্লাদের ওপর।

এমআরআই, আল্ট্রাসোনোগ্রাফি, এক্স-রে অনেক কিছু করা হয়েছে। সূর্যের আলোয় টানা বসিয়ে পরীক্ষা করা হয়েছে তার শারীরবৃত্তীয় পরিবর্তন। তার শরীর থেকে রক্ত নিয়ে মাপা হয়েছে লেপটিনের পরিমাণ। কারণ এই মাস্টার হরমোন লেপটিনই নিয়ন্ত্রণ করে দেহের ওজন। দেখার চেষ্টা হয়েছিল, এই লেপটিনের কোনও রকম পরিবতর্ন হচ্ছে কি না প্রহ্লাদের শরীরে। যাকে বলে ‘এক্সট্রিম অ্যাডপটেশন’। কিন্তু সব মিলিয়ে রহস্যভেদ হয়নি।

কিন্তু এটা কি আদৌ সম্ভব? শুধু হাওয়া খেয়ে বেঁচে থাকা! যুক্তরাষ্ট্রের হেনরিফোর্ড বিশ্ববিদ্যালয়ের মেডিসিন বিভাগের বিশেষজ্ঞ চিকিৎসক পারিজাত সেন বলেন, এটা একেবারে ভাঁওতাবাজি। বাঁচতে গেলে সামান্য কিছু হলেও খেতে হবে। শরীরের সিস্টেম কিছুদিন পরই আর সাপোর্ট করবে না। এই পাওহারি বাবা স্রেফ গল্প।

অন্য দিকে উত্তরবঙ্গ মেডিকেল কলেজের শারীরতত্ত্ব (অ্যানাটমি) বিভাগের স্পেশালিস্ট চিরঞ্জিৎ সামন্তর কথায়, এই ধরনের ঘটনার কোনও বৈজ্ঞানিক ভিত্তি নেই। তবে ফরেনসিক মেডিসিনে সাসপেনডেড অ্যানিমেশন বলে একটা শব্দ রয়েছে। কোনও মানুষের মৌল বিপাক ক্রিয়া অর্থাৎ বিএমআরএর হার খুব কমিয়ে রেখে একেবারে আলো-বাতাসহীন কোনও জায়গায় থাকলে তিনি বেঁচে থাকতে পারেন কি না এ নিয়ে গবেষণা চালাচ্ছেন বিজ্ঞানীরা। কিন্তু ৭০ বছর ধরে না খেয়ে বেঁচে থাকা? অসম্ভব!

প্রহ্লাদ জানীর প্রসঙ্গে শ্রীরামপুরের ওয়ালশ হাসপাতালের মেডিসিন বিশেষজ্ঞ বিয়াস সামন্ত বলেন, যোগী বাবা একেবারেই কিছু খান না তা হতেই পারে না। এসব একেবারে ভুল। বেঁচে থাকতে গেলে তো এনার্জি সোর্স চাই।

তার কথায়, 'সাসপেনডেড অ্যানিমেশনেও অসম্ভব এটি। দীর্ঘ দিন না খেয়ে থাকলে ত্বক, ফুসফুস, অগ্ন্যাশয় সর্বত্র প্রভাব পড়বে। ডিহাইড্রেশন হবে। চলাফেরার ক্ষমতা তো থাকবেই না।'

তবে, যতই বিতর্ক থাক বাবার আশ্রমে বিশিষ্টজনেরা কিন্তু প্রায়ই আসেন। প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদিও পাওহারি বাবার আশ্রমে গেছেন আশীর্বাদ নিতে। অনেক রাজনীতিবিদ বা প্রভাবশালী ব্যক্তির দেখা মেলে ওই আশ্রমে গেলে।

হরেক জটিল সমস্যার নাকি সমাধান করে দেন পাওহারি বাবা! এর জন্য কোনো টাকা-পয়সাও নেন না। ৮৮ বছর বয়সে সারা বিশ্বের যুক্তিবাদী মানুষকে তুর্কি নাচন নাচাচ্ছেন এই প্রহ্লাদ জানী। বলছেন, ভালবাসা আর মা অম্বার কাছে প্রার্থনা; বেঁচে থাকতে গেলে নাকি মানুষের আর কিছুরই প্রয়োজন নেই!

এদিকে সোশ্যাল মিডিয়ায়ও আলোচনা-সমালোচনায় আছেন এই পাওহারি বাবা। কেউ কেউ পাওহারি বাবাকে মাসখানেক আটক রেখে পর্যবেক্ষণ করার পক্ষে মত দিয়েছেন। তবে সেটা যে অসম্ভব তাও অজানা নয়। কারণ, কোন অপরাধে পাওহারিকে আটক করা হবে। আর আটক অবস্থায় যদি তার কোন ক্ষতি হয়, দায়ভার কে নেবে?


নড়বড়ে ও পুরনো সেতুগুলো দ্রুত মেরামতের নির্দেশ
ভারতে যাত্রীবাহী বাস খাদে নিহত ৬
বিশ্বকাপে সেরা অলরাউন্ডার সাকিব
টেকনাফে মানবপাচার মামলার তিন আসামি 'বন্দুকযুদ্ধে' নিহত 
সাকিবের নৈপুণ্যে টাইগারদের দাপুটে জয়
'দেশের মানুষ কষ্ট পেলে বাবার আত্মা কষ্ট পাবে'
আফগানিস্তানের বিপক্ষে চ্যালেঞ্জিং স্কোর গড়েছে টাইগাররা
বিশ্বকাপে সাকিবের ১ হাজার রান পূর্ণ 
আফগানদের বিপক্ষে ব্যাটিংয়ে বাংলাদেশ
বিএনপির কার্যালয়ের পাশে পাঁচটি ককটেল বিস্ফোরণ
'মানুষের জীবন নিয়ে কেউ যেন ছিনিমিনি খেলতে না পারে'
কলকাতায় শুটিংয়ে ব্যস্ত বাংলাদেশের শিল্পীরা
নিবন্ধন ও ফিটনেসবিহীন গাড়ির মালিকদের তথ্য চায় হাইকোর্ট
'বিকেলের মধ্যে উদ্ধার কাজ শেষ হবে'
সুবর্ণচরে র‌্যাবের সঙ্গে বন্দুকযুদ্ধে জলদস্যু নিহত
সিলেটের সঙ্গে সারাদেশের রেল যোগাযোগও বন্ধ
বগুড়া-৬ আসনে ভোটগ্রহণ চলছে
কুলাউড়ায় ট্রেন দুর্ঘটনায় ৪ সদস্যের তদন্ত কমিটি গঠন
'মেডিকেল টেস্ট থেকে চিকিৎসকদের কমিশন নেয়া বিচ্ছিন্ন ঘটনা'
ঝড়ে মন্দিরের প্যান্ডেল ভেঙে নিহত ১৪
ঝিনাইদহে অস্ত্রসহ সন্ত্রাসী গ্রেপ্তার
পরিবারকে সময় দিতে ছুটিতে সাকিব 
ছাত্রদলের দুপক্ষে মারামারি, আহত ১০
নড়বড়ে ও পুরনো সেতুগুলো দ্রুত মেরামতের নির্দেশ
ভারতে যাত্রীবাহী বাস খাদে নিহত ৬
বিশ্বকাপে সেরা অলরাউন্ডার সাকিব
বগুড়া-৬ আসনে জয় পেলেন বিএনপির সিরাজ
টেকনাফে মানবপাচার মামলার তিন আসামি 'বন্দুকযুদ্ধে' নিহত 
সাকিবের নৈপুণ্যে টাইগারদের দাপুটে জয়
'দেশের মানুষ কষ্ট পেলে বাবার আত্মা কষ্ট পাবে'
ট্রাকের ধাক্কায় প্রতিবন্ধী যুবতী নিহত
সাবেক স্বামীর ছুরিকাঘাতে নারী জখম
টাঙ্গাইলে সপ্তম শ্রেণীর ছাত্রীকে গণধর্ষ‌ণ
নেত্রীর সততাকে সম্বল করে আমরা এগিয়ে যাব: কাদের
আফগানিস্তানের বিপক্ষে চ্যালেঞ্জিং স্কোর গড়েছে টাইগাররা
লিটনের আউট নিয়ে বিতর্কে ঝড়
বিশ্বকাপে সাকিবের ১ হাজার রান পূর্ণ 
আফগানদের বিপক্ষে ব্যাটিংয়ে বাংলাদেশ
বিএনপির কার্যালয়ের পাশে পাঁচটি ককটেল বিস্ফোরণ
'মানুষের জীবন নিয়ে কেউ যেন ছিনিমিনি খেলতে না পারে'
যেভাবে উদ্ধার সোহেল তাজের ভাগ্নে সৌরভ
এইচআইভিতে আক্রান্ত ৪৬ জনকে শনাক্ত
রোগী দেখে ফেরার পথে লাশ হলেন চিকিৎসক
মার্কিন গোয়েন্দা ড্রোন ভূপাতিত করল ইরান
বিএনপির কার্যালয়ের পাশে পাঁচটি ককটেল বিস্ফোরণ
ঘুমন্ত ছোট ভাইকে হত্যা করল বড় ভাই
লিটনের আউট নিয়ে বিতর্কে ঝড়
ঢাবি ছাত্রীকে ধর্ষণ ও ভিডিও ধারণ, গ্রেপ্তার ১
ফরিদপুরে এক বছর ধরে কাজের মেয়েকে ধর্ষণ
কাল ভিটামিন ‘এ’ ক্যাপসুল খাওয়ানো হবে 
বাংলাদেশকে ৩৮২ রানের টার্গেট দিল অস্ট্রেলিয়া
ফেসবুকে প্রেম, জার্মান নারী এখন খুলনায়
বাংলাদেশ-অস্ট্রেলিয়া ম্যাচে আবহাওয়ার পূর্বাভাসে যা বলছে!
শতরানের জুটি গড়ে ফিরলেন মাহমুদউল্লাহ
ইরানকে এস-৪০০ নিতে বলল রাশিয়া
নি‌খোঁজের ১৬ ঘণ্টা পর শিক্ষার্থীর লাশ উদ্ধার
ভারতকে মাটিতে নামাল আফগানরা 
ডিআইজি মিজানের সম্পদ ক্রোক ও হিসাব জব্দ
লঞ্চে আগুন
কুলাউড়ায় ট্রেন দুর্ঘটনায় ৪ সদস্যের তদন্ত কমিটি গঠন

সব খবর