নুরদের নতুন দল ‘গণঅধিকার পরিষদ’

অনলাইন ডেস্ক

নুরদের নতুন দল ‘গণঅধিকার পরিষদ’

শিগগিরই আনুষ্ঠানিকভাবে আত্মপ্রকাশ করতে যাচ্ছে নুর-রাশেদদের নতুন রাজনৈতিক দল ‘গণঅধিকার পরিষদ’। ইতোমধ্যে প্রায় সকল প্রস্তুতি সম্পন্ন হয়েছে বলে জানা গেছে। সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে ইতোমধ্যে এই নামের বিভিন্ন প্রচার প্রচারণা চালানো হচ্ছে। 

এর আগে বিভিন্ন সময় ডাকসুর সাবেক ভিপি নুরুল হক নুর একাধিকবার রাজনৈতিক দল গঠনের ঘোষণা দিয়েছেন। এছাড়া ছাত্র অধিকার পরিষদের আদলে দেশে-বিদেশে বিভিন্ন শ্রেণি-পেশার মানুষদের নিয়ে অধিকার পরিষদ গঠন করেছেন তারা।

আরও পড়ুন:


বাংলাদেশে মসজিদ-মাদ্রাসা থেকে তরুণরা মগজধোলাই হয়ে বের হয়


ছাত্র অধিকার পরিষদের যুগ্ম আহ্বায়ক মুহাম্মদ রাশেদ খান জানান, আমাদের নতুন রাজনৈতিক উদ্যোগের নাম ‘গণঅধিকার পরিষদ’। ইতোমধ্যে এই উদ্যোগে যুক্ত হয়েছেন বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষক, সাবেক আমলা, অভিজ্ঞ ও বর্ষীয়ান রাজনীতিবিদ থেকে শুরু করে দেশের গুণি ব্যক্তিরা।

 এ বিষয়ে রাশেদ খান বলেন, এটি মূলত তারুণ্যনির্ভর রাজনৈতিক দল। তার মানে এই নয় যে, এই দলের সবাই বয়সে তরুণ। এখানে প্রবীণ-নবীনরা মিলে একটি সুন্দর দেশ গড়ে তুলবে। নাগরিক অধিকার নিশ্চিতে তারা কাজ করবেন।

ছাত্র অধিকার পরিষদের সাবেক এই নেতা বলেন, আপাতত দলগঠন করা হচ্ছে। আলোচনার মাধ্যমে রাজনৈতিক দলের ঘোষণা করা হতে পারে। আর ‘গণঅধিকার পরিষদ’ নামও চূড়ান্ত হতে পারে। সবাই একমত হলে আনুষ্ঠানিক ঘোষণা দেওয়া হবে। সারাদেশে এ পরিষদের কার্যক্রম চলমান রয়েছে।

উল্লেখ্য, দেশে সরকারি চাকরিতে কোটা সংস্কারের বিরুদ্ধে আন্দোলনের ধারাবাহিকতায় গড়ে ওঠা ছাত্র অধিকার সংরক্ষণ পরিষদের একটি অংশ গত বৃহস্পতিবার (১৫ অক্টোবর) এক সংবাদ সম্মেলনে নেতা হিসেবে নিজেদের ঘোষণা করে।

একই সঙ্গে তারা ডাকসুর সাবেক ভিপি নুরুল হক নুর ও পরিষদের যুগ্ম আহ্বায়কদের মধ্যে মুহাম্মদ রাশেদ খানকে অবাঞ্ছিত ঘোষণা করে। এর কারণ হিসেবে ঢাবির সাবেক ভিপি নুর ও তার সহযোগীদের বিরুদ্ধে ধর্ষণ মামলা কথা উল্লেখ করেন তারা।

news24bd.tv কামরুল

মন্তব্য