কেঁচো খুঁড়তে গিয়ে সাপ বেরিয়ে এলো

তসলিমা নাসরিন

কেঁচো খুঁড়তে গিয়ে সাপ বেরিয়ে এলো

সুশান্ত আত্মহত্যা করেছে, কিন্তু তার ভক্তরা দাবি করেছে ও আত্মহত্যা করেনি, ওকে মেরে ফেলা হয়েছে। বোম্বে পুলিশের আচরণ তাদের পছন্দ হয়নি, তাই সিবিআই তদন্তের দাবি উঠিয়েছে। 

সিবিআই শেষ পর্যন্ত তদন্ত শুরু করেছে। কিন্তু এখন অবধি সিবিআই বলছে না সুশান্তকে কেউ খুন করেছে। বরং সবাই ড্রাগ নিয়ে পড়েছে। ড্রাগের জন্য বেশি খোঁড়াখুঁড়ির ফলে কী বেরিয়ে আসছে? বেরিয়ে আসছে সুশান্ত একটা ড্রাগ অ্যাডিক্ট ছিল।


আরও পড়ুন: বুনো হাতির মুখোমুখি


সুশান্ত'র ভক্তদের জন্য এই তথ্য নিশ্চয়ই অস্বস্তির। এখন তো সুশান্তর নিরীহ একটি সিগারেট ফোঁকার ছবি বেরোলেই ড্রাগ ড্রাগ বলে চেঁচানো হচ্ছে। সুশান্তর ভক্তদের জন্য মায়াই হয়। কেঁচো খুঁড়তে গিয়ে সাপ বেরিয়ে এলো।

তসলিমা নাসরিন : লেখক (ফেইসবুক থেকে)

মন্তব্য